| বাংলার জন্য ক্লিক করুন
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
শিরোনাম : * এবার বগি লাইনচ্যুত হয়ে রংপুর এক্সপ্রেসে আগুন   * ৪ উইকেট হারিয়ে ১০০ পার বাংলাদেশের   * আটকের পর ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা ডাকাত নিহত   * ৬৯ বার পেছাল সাগর-রুনি হত্যার তদন্ত প্রতিবেদন   * রোগীদের টাকায় চলে টাঙ্গাইল ডায়াবেটিক হাসপাতাল   * আয়কর মেলায় উপচেপড়া ভিড়   * চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলায় খালেদার জামিন খারিজের বিরুদ্ধে আপিল   * ফোক ফেস্ট শুরু হচ্ছে আজ, প্রথমদিন মঞ্চ মাতাবেন যারা   * ধড়পাকড়ে স্বপ্ন এখন দুঃস্বপ্ন, ফিরলেন আরও ২১৫ কর্মী   * ৪৮ ঘণ্টায় ৩২ ফিলিস্তিনি নিহত  

   শিক্ষাঙ্গন
  রাজনৈতিক নয়, শিক্ষাগত যোগ্যতায় হবে প্রাইমারি স্কুলের কমিটি
 

নিজস্ব প্রতিবেদক

>> সভাপতি পদে লাগবে স্নাতক পাস
>> দায়িত্ব অনেক বেড়ে গেল কমিটির
>> আগামী সপ্তাহে এ বিষয়ে প্রজ্ঞাপন

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের স্কুল ম্যানেজিং কমিটিতে (এসএমসি) আমূল পরিবর্তন আনছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়। সভাপতিসহ ১১ সদস্যবিশিষ্ট এসএমসির দায়িত্ব ও কর্তব্য নির্ধারণ করে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ব্যবস্থাপনা কমিটি গঠনের নীতিমালা চূড়ান্ত করা হয়েছে। আগামী সপ্তাহে এ-সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হবে বলে মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে।

সূত্র জানায়, নীতিমালায় সভাপতির শিক্ষাগত যোগ্যতা হিসেবে সর্বনিম্ন স্নাতক (অনার্স) পাস নির্ধারণ করা হয়েছে। রাজনৈতিক বিবেচনায় মনোনীত বিদ্যোৎসাহী সদস্যদেরকেও এসএসসি পাস হতে হবে। তবে অভিভাবক প্রতিনিধিসহ অন্য ক্যাটাগরির সদ্যসদের শিক্ষাগত যোগ্যতা নির্ধারণ করা হয়নি। তবে দেশের প্রত্যন্ত এলাকার স্কুলের এসএমসি গঠনে স্নাতক পাস সভাপতি পাওয়া নিয়ে শঙ্কা রয়েছে। কারণ এসএমসির ১১ সদস্যের ভোটেই সভাপতি নির্বাচিত হবেন।

জানতে চাইলে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী মো. জাকির হোসেন বলেন, ‘সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের গুণগতমান নিশ্চিত করতে এসএমসিতে বড় পরিবর্তন আনার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। শিক্ষিত ও যোগ্য লোককে এ কমিটির প্রধান করা হবে। যে কারণে সভাপতির শিক্ষাগত যোগ্যতা স্নাতক নির্ধারণ করা হয়েছে। বিদ্যোৎসাহী সদস্য হতে হলেও এসএসসি পাস হতে হবে। অবশ্যই তাদের সন্তানকে স্কুলে পড়তে হবে। কারণ নিজের সন্তান স্কুলে না পড়লে প্রতিষ্ঠানের প্রতি তার দরদ থাকে না। স্কুলের প্রতি যাতে তার দরদ থাকে, স্কুলের উন্নয়নের কথা ভাবে, কেউ যেন স্কুল নিয়ে বাণিজ্য করতে না পারে, সেজন্য এসএমসি গঠনে ব্যাপক পরিবর্তন আনা হচ্ছে।’

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের তৈরি করা এ-সংক্রান্ত নতুন প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, ‘১১ সদস্যবিশিষ্ট এসএমসি গঠিত হবে। তাতে স্কুলের প্রধান শিক্ষক বা ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক সচিবের দায়িত্ব পালন করবেন। সংশ্লিষ্ট এলাকার এমপির সুপারিশে স্কুলে অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের অভিভাবকদের মধ্য থেকে একজন বিদ্যোৎসাহী নারী ও একজন পুরুষ সদস্য মনোনয়ন দেবেন প্রধান শিক্ষক। তবে তাদের অবশ্যই এসএসসি পাস হতে হবে। বিদ্যালয়ের জমিদাতা বা তাদের উত্তরাধিকারীদের মধ্য থেকে একজন সদস্য মনোনীত হবেন। জমিদাতারা নিজেরা প্রতিনিধি মনোনীত করতে না পারলে উপজেলা শিক্ষা কমিটি নির্ধারণ করে দেবে।

সংশ্লিষ্ট স্কুলের নিকটবর্তী সরকারি-বেসরকারি হাইস্কুলের একজন শিক্ষক কমিটির সদস্য মনোনীত হবেন। ওই হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক তা নির্ধারণ করে দেবেন। স্কুলের শিক্ষকদের মধ্য থেকে একজন শিক্ষক প্রতিনিধি নির্বাচিত হবেন। শিক্ষার্থীদের অভিভাবকদের ভোটে দুজন নারী ও দুজন পুরুষ সদস্য নির্বাচিত হবেন। স্কুলটি ইউনিয়ন বা পৌরসভার যে ওয়ার্ডে অবস্থিত সেখানকার ইউপি সদস্য বা কাউন্সিলর পদাধিকার বলে সদস্য মনোনীত হবেন। এ ১১ জনের ভোটে সভাপতি ও সহ-সভাপতি নির্বাচিত হবেন। সভাপতিকে অবশ্যই স্নাতক ডিগ্রিধারী হতে হবে। একই স্কুলে টানা দুবারের বেশি কোনো ব্যক্তি সভাপতি হতে পারবেন না। কমিটির সদস্যরা সভাপতিকে লিখিতভাবে না জানিয়ে টানা তিনটি সভায় অনুপস্থিত থাকলে সদস্য পদ বাতিল হবে। কমিটির মেয়াদ হবে তিন বছর। কোনো কারণে নির্ধারিত সময়ে কমিটি গঠনে ব্যর্থ হলে ছয় মাসের জন্য অ্যাডহক কমিটি গঠন করতে হবে। অ্যাডহক কমিটির সভাপতি হবেন সংশ্লিষ্ট ক্লাস্টারের দায়িত্বপ্রাপ্ত উপজেলা সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা।


এ বিষয়ে কথা হয় বাংলাদেশ প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক সমাজের সভাপতি এবং যশোর অভয়নগর উপজেলার আড়পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক তপন কুমার মণ্ডলের সঙ্গে। কমিটিতে সভাপতির স্নাতক পাস নিয়ে তিনি দ্বিমত পোষণ করেন। এতে করে অনেক স্কুলে সভাপতি নির্বাচন করা কঠিন হবে বলে তিনি মনে করেন। এর কারণ ব্যাখ্যা করতে গিয়ে তিনি বলেন, ‘আমাদের দেশে গ্র্যাজুয়েটের সংখ্যা বাড়েনি। সভাপতি যিনি হন তাকে স্বচ্ছ ও উদার মানসিকতার শিক্ষাবান্ধব হতে হয়। দেখা গেল ডিগ্রি পাস না কিন্তু নীতি-নৈতিকতাসম্পন্ন ব্যক্তি এসএমসির সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন। নীতিমালার শর্তের কারণে তিনি সভাপতি হতে পারবেন না।’

তিনি আরও বলেন, ‘শিক্ষকরা সভাপতি হতে পারবেন না। চারজন অভিভাবক প্রতিনিধি ও ইউপি সদস্য বা কাউন্সিলর অশিক্ষিত হতে পারেন। দুজন বিদ্যোৎসাহী সদস্যের শিক্ষাগত যোগ্যতা এসএসসি পাস নির্ধারণ করা হয়েছে। সে ক্ষেত্রে এসএমসি গঠন করাই তো সম্ভব হবে না।’

কমিটির দায়িত্ব ও কর্তব্য

প্রতি বছর মে, আগস্ট ও ডিসেম্বর মাসের ৩০ তারিখের মধ্যে স্কুল ব্যবস্থাপনা, শিক্ষার্থী উপস্থিতি ও শিক্ষকদের দায়িত্ব পালনের ওপর প্রতিবেদন উপজেলা বা থানা শিক্ষা কর্মকর্তার কাছে দিতে হবে এসএমসিকে। শিক্ষার্থীদের শারীরিক শাস্তি বন্ধ নিশ্চিত করতে হবে। শিক্ষার্থীদের সততা, নৈতিক শিক্ষা প্রদানে ভূমিকা রাখতে হবে। কমিটির সকল সদস্যকে প্রতি মাসের শেষ কর্মদিবসে ক্লাস শেষে অন্তত এক ঘণ্টা শিক্ষার্থীদের অভিযোগ ও সুপারিশ শুনতে হবে। এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে উপজেলা শিক্ষা কমিটির কাছে প্রতিবেদন দিতে হবে।

কমিটি স্কুলের সার্বিক উন্নয়নে জনগণের কাছ থেকে জমি, ভবন, আসবাবপত্র, যন্ত্রপাতি, শিখন ও শেখানো সামগ্রী, শিক্ষা উপকরণ, নগদ অর্থ নিতে পারবে। দানকারীদের নাম প্রধান শিক্ষকের রুমের বোর্ডে প্রদর্শন করতে হবে। ভবন নির্মাণে স্কুলের খেলার মাঠ ও অন্যান্য স্থাপনা যাতে ক্ষতিগ্রস্ত না হয় সে বিষয়ে উপজেলা বা থানা প্রকৌশলীর প্রত্যায়ন নিতে হবে।

স্কুলের উন্নয়ন পরিকল্পনা (এসএলআইপি) তৈরি

কমিটির সদস্যদের স্কুলের শিখন-শেখানো পরিবেশ সম্পর্কিত অবস্থা বিশ্লেষণ এবং সমস্যা চিহ্নিত করতে হবে। স্থানীয় জনগণের কাছ থেকে স্কুলের উন্নয়নে তহবিল সংগ্রহ করতে হবে। স্কুলের ক্যাচমেন্ট (আশপাশের নির্ধারিত এলাকা) এলাকার সকল শিশুকে স্কুলে ভর্তি ও গুণগত শিক্ষা নিশ্চিত করতে এসএমসিকে শিশু জরিপে সহায়তা করতে হবে। বিশেষ চাহিদাসম্পন্ন শিশু চিহ্নিতকরণ ও ভর্তিসহ তাদের সহযোগিতা করতে হবে। তাদের চাহিদা কর্তৃপক্ষকে জানাতে হবে। একীভূত শিক্ষা কার্যক্রম বাস্তবায়নে প্রাপ্ত অর্থ সঠিকভাবে খরচ নিশ্চিত করতে হবে। এসএমসি সদস্যদের প্রাক-প্রাথমিক শিক্ষাসামগ্রী ক্রয়সহ সার্বিক তদারকি করতে হবে। স্কুলের অবকাঠামো নির্মাণ ও সংস্কারে এসএমসি তিন লাখ টাকা পর্যন্ত খরচ করতে পারবে। তবে উপজেলা শিক্ষা কমিটির অনুমোদন নিতে হবে। স্থানীয়দের অনুদানের মাধ্যমে নির্মাণকাজে এ শর্ত কার্যকর হবে না।

স্কুলের ক্যাচমেন্ট এলাকার প্রাথমিক স্তরে ঝরে পড়া শিশুদের শনাক্ত করতে হবে। তাদের দ্বিতীয় দফায় শিক্ষা কার্যক্রমে সুযোগ দিতে হবে। ঝরে পড়া শিশুর অভিভাবকদের দ্বিতীয়বার শিক্ষা চালিয়ে নিতে উদ্বুদ্ধ করতে হবে। এ-সংক্রান্ত কার্যক্রম পরিচালনায় শিক্ষক নির্বাচনে সহায়তা দিতে হবে। শিক্ষকদের প্রশিক্ষণে শিক্ষক যাচাই করবে এসএমসি। এছাড়া স্কুলে সকল প্রশিক্ষণ ও সাব ক্লাস্টারের কার্যক্রম পরিচালনায় সহায়তা করতে হবে। দুর্যোগকালীন সময়ে পাঠদান কার্যক্রম পরিচালনা, শিক্ষার্থী, অভিভাবক, শিক্ষকদের সতর্ক এবং দুর্যোগকালীন প্রস্তুতি ও পরবর্তীতে করণীয় নির্ধারণ করবে এসএমসি।

এসএমসির ১১ সদস্যের মধ্যে শিক্ষক ছাড়া অন্যদের পর্যায়ক্রমে চারজনকে প্রতি মাসে অন্তত ছয়দিন স্কুলের কার্যক্রম পর্যবেক্ষণ করতে হবে। এ-সংক্রান্ত প্রতিবেদন এসএমসির মাসিক সভায় উপস্থাপন করতে হবে। ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর শিশুদের স্কুলে ভর্তি ও নিয়মিত উপস্থিত নিশ্চিত করতে তিন সদস্যের কমিটি গঠন করে তদারকি করতে হবে।

এসএমসি অনুমোদনের পরবর্তী তিন বছর দায়িত্ব পালন করবে। মেয়াদ শেষ হওয়ার ছয় মাস আগে প্রধান শিক্ষক পরবর্তী কমিটি গঠনের উদ্যোগ নেবেন। সরকারি আদেশ অমান্য, দায়িত্ব পালনে ব্যর্থ, আর্থিক অনিয়ম এবং যেকোনো শৃঙ্খলা পরিপন্থী কারণে এসএমসি বাতিল করে আইনি ব্যবস্থা নিতে পারবে সংশ্লিষ্ট এলাকার শিক্ষা কর্মকর্তা। এ প্রজ্ঞাপন জারির আগে গঠিত এসএমসি পূর্ণ মেয়াদ শেষ করতে পারবে। তবে প্রজ্ঞাপনটি পার্বত্য তিন জেলার ক্ষেত্রে প্রযোজ্য হবে না।



সংবাদটি পড়া হয়েছে মোট : 12        
   শেয়ার করুন
Share Button
   আপনার মতামত দিন
     শিক্ষাঙ্গন
সংশোধিত প্রাথমিক বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির নীতিমালা জারি
.............................................................................................
ইডেন কলেজে এক নেত্রীকে কোপালেন আরেক নেত্রী
.............................................................................................
নিষেধাজ্ঞার দ্বিতীয় দিনেও জাবিতে বিক্ষোভ-সমাবেশ
.............................................................................................
বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকরাও পাবেন গৃহঋণ
.............................................................................................
হল থেকে বেরিয়ে বিক্ষোভে জাবি শিক্ষার্থীরা
.............................................................................................
আতঙ্ক নিয়ে হল ছাড়ছেন জাবি শিক্ষার্থীরা
.............................................................................................
জাবিতে আন্দোলনে সংহতি প্রকাশ করেন সমবেত বিশিষ্টজনেরা
.............................................................................................
জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ ঘোষণা
.............................................................................................
ঢাবি অধিভুক্ত সাত কলেজে ডিগ্রীর ফল বিপর্যয়: সুষ্ঠু সমাধানের দাবীতে মানববন্ধন
.............................................................................................
জাবিতে আন্দোলনরতদের ওপর ছাত্রলীগের হামলা
.............................................................................................
জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষায় বসেছে সাড়ে ২৬ লাখ শিক্ষার্থী
.............................................................................................
রাজনৈতিক নয়, শিক্ষাগত যোগ্যতায় হবে প্রাইমারি স্কুলের কমিটি
.............................................................................................
খুবিতে চলছে ১ম বর্ষ ভর্তি পরীক্ষা
.............................................................................................
জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষা শুরু
.............................................................................................
ঢাবির ‘ঘ’ ইউনিটের ফল প্রকাশ, ফেল ৮৬.৭৪ শতাংশ
.............................................................................................
জেএসসি ও জেডিসি: মোট পরীক্ষার্থী ২৬ লাখ ৬১ হাজার ৬৮২
.............................................................................................
বুয়েট ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ
.............................................................................................
ঢাবির ‘ক’ ইউনিটে ৮৭ শতাংশই ফেল
.............................................................................................
বিকাল ৫টায় পরবর্তী সিদ্ধান্ত জানাবেন বুয়েটের শিক্ষার্থীরা
.............................................................................................
বুয়েটে ভর্তি পরীক্ষা শুরু
.............................................................................................
ঢাবি ‘খ’ ইউনিটের ফল প্রকাশ, ৭৬ শতাংশ ফেল
.............................................................................................
বুয়েট ছাত্রলীগ সভাপতি-সম্পাদকের কক্ষ সিলগালা
.............................................................................................
আন্দোলন শিথিল, বুয়েটে ভর্তি পরীক্ষা ১৪ অক্টোবর
.............................................................................................
উপাচার্য চাইলে ৫ দফা দাবি এক ঘণ্টাতেই পূরণ সম্ভব
.............................................................................................
ঢাবি ‘খ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ রোববার
.............................................................................................
৫ দফা পূরণ না হওয়া পর্যন্ত বুয়েটে ভর্তি পরীক্ষা স্থগিত
.............................................................................................
বুয়েটে ছাত্ররাজনীতি নিষিদ্ধ
.............................................................................................
মাস্টার্স পরীক্ষার পর ১৫ দিনের মধ্যে ছাড়তে হবে হল
.............................................................................................
পিস্তল দেখিয়ে হুমকি, ঢাবির হল থেকে আটক ২
.............................................................................................
১৪ অক্টোবরের ডিগ্রি পরীক্ষা স্থগিত
.............................................................................................
ঢাবিতে আবরারের গায়েবানা জানাজা
.............................................................................................
আবরার হত্যা : বিক্ষোভে উত্তাল ঢাবি
.............................................................................................
বুয়েটের হলে ছাত্রকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ
.............................................................................................
ঢাবির ‘গ’ ইউনিটের ফল প্রকাশ
.............................................................................................
বশেমুরবিপ্রবি’র আরেক সহকারী প্রক্টরের পদত্যাগ
.............................................................................................
গোপালগঞ্জে ভিসির পদত্যাগের দাবিতে আন্দোলন চলছে
.............................................................................................
ঢাবিতে ছাত্রদলের ওপর ছাত্রলীগের হামলা
.............................................................................................
ডেন্টালে ভর্তি পরীক্ষা ১ নভেম্বর
.............................................................................................
৫ম দিনের মতো বশেমুরবিপ্রবিতে আন্দোলনে শিক্ষার্থীরা
.............................................................................................
বশেমুরবিপ্রবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা, আহত ২০
.............................................................................................
আন্দোলনের মুখে বশেমুরবিপ্রবি বন্ধ ঘোষণা
.............................................................................................
ভিসির পদত্যাগের দাবিতে উত্তাল বশেমুরবিপ্রবি
.............................................................................................
ঢাবিতে ডিনের কার্যালয় ঘেরাও নিয়ে উত্তেজনা
.............................................................................................
জাবিতে দ্বিতীয় দিনের মতো প্রশাসনিক ভবন অবরোধ
.............................................................................................
এইচএসসি পরীক্ষার সময়সূচি প্রকাশ
.............................................................................................
মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষা ৪ অক্টোবর
.............................................................................................
ভর্তি পরীক্ষায় জালিয়াতি: ঢাবির ৬৯ শিক্ষার্থীকে সাময়িক বহিষ্কার
.............................................................................................
ডেঙ্গুতে ঢাবি শিক্ষার্থীর মৃত্যু
.............................................................................................
অনির্দিষ্টকাল ক্লাস-পরীক্ষা বর্জনের ঘোষণা ঢাবি শিক্ষার্থীদের
.............................................................................................
অধিভুক্তি সাত কলেজ বাতিলের দাবিতে ঢাবির ভবনে ভবনে তালা, ক্লাস বর্জন
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক : মো: তাজুল ইসলাম
প্রধান কার্যালয়: ২১৯ ফকিরের ফুল (১ম লেন, ৩য় তলা), মতিঝিল, ঢাকা- ১০০০ থেকে প্রকাশিত । ফোন: ০২-৭১৯৩৮৭৮ মোবাইল: ০১৮৩৪৮৯৮৫০৪, ০১৭২০০৯০৫১৪
Web: www.dailyasiabani.com ই-মেইল: dailyasiabani2012@gmail.com
   All Right Reserved By www.dailyasiabani.com Developed By: Dynamicsolution IT [01686797756]