| বাংলার জন্য ক্লিক করুন
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
শিরোনাম : * মিয়ানমারে আন্দোলন দমনে শিশুদেরও তুলে নিয়ে যাচ্ছে সেনারা   * টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ: টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের থিমসং প্রকাশ   * ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত্যু ও শনাক্ত দুটোই কমেছে   * শনিবার থেকেই বিমানবন্দরে করোনার পিসিআর টেস্ট   * সাহস থাকলে তারেককে দেশে ফিরিয়ে আনুন, বিএনপিকে কাদের   * ইভ্যালির রাসেলকে জেলগেটে জিজ্ঞাসাবাদের নির্দেশ   * ইউনিয়ন ব্যাংকের ভল্টে গরমিল, তিন কর্মকর্তা প্রত্যাহার   * জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে ই-অরেঞ্জের শত শত গ্রাহক   * দেশে সিনোফার্মের আরও ৫০ লাখ টিকা এলো   * মিয়ানমারে সেনা-বিদ্রোহী সংঘর্ষ, শহর খালি করে ভারতে শরণার্থীর ঢল  

   ইসলাম
  মহররম মাসে রোজা রাখার ফজিলত বরকত
 

মিয়া আবদুল হান্নান : আজ ৪ মহররম ১৪৪৩ হিজরি, মাসের প্রথম জুমআ ( শুক্রবার) প্রশ্ন: আমি শুনেছি আশুরার রোজা নাকি বিগত বছরের গুনাহ মোচন করে দেয়- এটা কি সঠিক? সব গুনাহ কি মোচন করে; কবিরা গুনাহও ? এ দিনের এত বড় মর্যাদার কারণ কি?

উত্তরঃ আলহামদু লিল্লাহ।.
(এক)
আশুরার রোজা বিগত বছরের গুনাহ মোচন করে। দলিল হচ্ছে নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম এর বাণী: “আমি আল্লাহর নিকট প্রতিদান প্রত্যাশা করছি আরাফার রোজা বিগত বছর ও আগত বছরের গুনাহ মার্জনা করবে। আরও প্রত্যাশা করছি আশুরার রোজা বিগত বছরের গুনাহ মার্জনা করবে।-সহিহ মুসলিম (১১৬২) এটি আমাদের উপর আল্লাহ তাআলার অনুগ্রহ একদিনের রোজার মাধ্যমে বিগত বছরের সব গুনাহ মার্জনা হয়ে যাবে।নিশ্চয় আল্লাহ মহান অনুগ্রহকারী।আশুরার রোজার মহান মর্যাদার কারণে নবী করিম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম এ রোজার ব্যাপারে খুব আগ্রহী থাকতেন। ইবনে আব্বাস (রাঃ) থেকে বর্ণিত তিনি বলেন: “ফজিলতপূর্ণ দিন হিসেবে আশুরার রোজা ও এ মাসের রোজা অর্থাৎ রমজানের রোজার ব্যাপারে নবী করিম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামকে যত বেশি আগ্রহী দেখেছি অন্য রোজার ব্যাপারে তদ্রূপ দেখিনি।-সহিহ বুখারি (১৮৬৭)] হাদিসে শব্দের অর্থ- সওয়াব প্রাপ্তি ও আগ্রহের কারণে তিনি এ রোজার প্রতীক্ষায় থাকতেন।
(দুই)
আর নবী সাল্লাল্লাহু আলাহি ওয়া সাল্লাম কর্তৃক আশুরার রোজা রাখা ও এ ব্যাপারে সাহাবায়ে কেরামকে উদ্বুদ্ধ করার কারণ হচ্ছে বুখারির বর্ণিত হাদিস (১৮৬৫) ইবনে আব্বাস (রাঃ) থেকে বর্ণিত তিনি বলেন: “নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম যখন মদিনায় এলেন তখন দেখলেন ইহুদিরা আশুরার দিন রোজা রাখে। তখন তিনি বললেন: কেন তোমরা রোজা রাখ? তারা বলল: এটি উত্তম দিন। এদিনে আল্লাহ বনি ইসরাঈলকে তাদের শত্রুর হাত থেকে মুক্ত করেছেন; তাই মুসা আলাইহিস সালাম এদিনে রোজা রাখতেন। তখন নবী করিম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম -বললেন: তোমাদের চেয়ে আমি-মুসার(আঃ) অধিক নিকটবর্তী। ফলে তিনি এ দিন রোজা রাখলেন এবং অন্যদেরকেও রোজা রাখার নির্দেশ দিলেন।”হাদিসের উদ্ধৃতি: “এটি উত্তম দিন” মুসলিমের রেওয়ায়েতে এসেছে- “এটি মহান দিন। এদিনে আল্লাহ মুসা( আঃ)কে ও তাঁর কওমকে মুক্ত করেছেন এবং ফেরাউন ও তার কওমকে ডুবিয়ে মেরেছেন।” হাদিসের উদ্ধৃতি: “তাই মুসা আলাইহিস সালাম এদিনে রোজা রাখতেন” সহিহ মুসলিমে আরেকটু বেশি আছে যে “...আল্লাহর প্রতি কৃতজ্ঞতাস্বরূপ; তাই আমরা এ দিনে রোজা রাখি”। বুখারির অন্য রেওয়ায়েতে এসেছে- “এ দিনের মহান মর্যাদার কারণে আমরা রোজা রাখি”। হাদিসের উদ্ধৃতি: “অন্যদেরকেও রোজা রাখার নির্দেশ দিলেন” বুখারির অন্য রেওয়ায়েতে এসেছে- “তিনি তাঁর সাহাবীদেরকে বললেন: তোমরা তাদের চেয়ে মুসার (আঃ) অধিক নিকটবর্তী। সুতরাং তোমরা রোজা রাখো।
( তিন)
আশুরার রোজা দ্বারা শুধু সগিরা গুনাহ মার্জনা হবে। কবিরা গুনাহ বিশেষ তওবা ছাড়া মোচন হয় না। ইমাম নববী (রহঃ) বলেন: আশুরার রোজা সকল সগিরা গুনাহ মোচন করে। হাদিসের বাণীর মর্ম রূপ হচ্ছে- কবিরা গুনাহ ছাড়া সকল গুনাহ মোচন করে দেয়।এরপর তিনি আরো বলেন: আরাফার রোজা দুই বছরের গুনাহ মোচন করে। আর আশুরার রোজা এক বছরের গুনাহ মোচন করে। মুক্তাদির আমীন বলা যদি ফেরেশতাদের আমীন বলার সাথে মিলে যায় তাহলে পূর্বের সকল গুনাহ মাফ করে দেয়া হয়... উল্লেখিত আমলগুলোর মাধ্যমে পাপ মোচন হয়। যদি বান্দার সগিরা গুনাহ থাকে তাহলে সগিরা গুনাহ মোচন করে। যদি সগিরা বা কবিরা কোন গুনাহ না থাকে তাহলে তার আমলনামায় নেকি লেখা হয় এবং তার মর্যাদা বৃদ্ধি করা হয়। ... যদি কবিরা গুনাহ থাকে, সগিরা গুনাহ না থাকে তাহলে কবিরা গুনাহকে কিছুটা হালকা করার আশা করতে পারি

আল-মাজমু শারহুল মুহাযযাব, খণ্ড-৬] শাইখুল ইসলাম ইবনে তাইমিয়া (রহঃ) বলেন: পবিত্রতা অর্জন, নামায আদায়, রমজানের রোজা রাখা, আরাফার দিন রোজা রাখা, আশুরার দিন রোজা রাখা ইত্যাদির মাধ্যমে শুধু সগিরা গুনাহ মোচন হয়। আল-ফাতাওয়া আল-কুবরা, খণ্ড-৫।
------------------------------------------------------------------আগামী শুক্রবার জুম`আ ১৯ আগষ্ট ২০২১ ঈসায়ী, ও ১০ মহররম ১৪৪৩ হিজরি আশুরার দিন এ উপলক্ষে এর ফজিলত লাভ তাৎপর্য বিষয়ে আলোচনা পর্যালোচনা দেখুন এবং পড়ুন।



সংবাদটি পড়া হয়েছে মোট : 111        
   শেয়ার করুন
Share Button
   আপনার মতামত দিন
     ইসলাম
টাখনুর নিচে কাপড় পরা হারাম কেন?
.............................................................................................
জুমআর নামাজে দ্রুত আসা কি জরুরি?
.............................................................................................
ওমরায় মুসল্লির সংখ্যা বাড়াচ্ছে সৌদি
.............................................................................................
পবিত্র আশুরা আজ
.............................................................................................
আশুরার ফজিলত করণীয় ও বর্জনীয়
.............................................................................................
মহররম মাসে রোজা রাখার ফজিলত বরকত
.............................................................................................
পবিত্র আশুরা ২০ আগস্ট
.............................................................................................
ভুলে গোনাহ করে ফেললে সঙ্গে সঙ্গে যে আমল ও দোয়া করবেন
.............................................................................................
‌প্রতিটি জুমআ`র দিনের সওয়ার ও মর্যাদা ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আজহা`র মতোই গুরুত্বপূরণ ফজিলত
.............................................................................................
জুমআ মুসলমানদের সাপ্তাহিক বিশেষ নামায পড়িবার এবং ইবাদতের দিন
.............................................................................................
হজ শেষে ওমরাহ শুরু; বিদেশিরাও পাচ্ছে অনুমতি!
.............................................................................................
ঈদুল আজহা পালন ও কোরবানি হবে একমাত্র আল্লাহর উদ্দেশে: আমরা মনের পশুত্ব কোরবানি দেই
.............................................................................................
কুরবানির পশু চুরি হয়ে গেলে বা মরে গেলে কী করণীয়
.............................................................................................
কাবা শরিফে পরানো হয়েছে স্বর্ণখচিত নতুন গিলাফ
.............................................................................................
কুরবানির বিকল্প কোনো ইবাদত নেই
.............................................................................................
যেসব আমলে কোরবানির সমান সওয়াব
.............................................................................................
চাঁদ দেখা গেছে, ঈদুল আজহা ২১ জুলাই
.............................................................................................
যেসব কারণে জুমআর দিনের মর্যাদা ও শ্রেষ্ঠত্ব বেশি
.............................................................................................
দাওয়াতের অন্যতম পথ ওয়াজ মাহফিল
.............................................................................................
যে ২টি জিনিস না থাকলে কুরবানি কবুল হবে না
.............................................................................................
Digital Truck Scale | Platform Scale | Weighing Bridge Scale
Digital Load Cell
Digital Indicator
Digital Score Board
Junction Box | Chequer Plate | Girder
Digital Scale | Digital Floor Scale

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক : মো: তাজুল ইসলাম
প্রধান কার্যালয়: ২১৯ ফকিরের ফুল (১ম লেন, ৩য় তলা), মতিঝিল, ঢাকা- ১০০০ থেকে প্রকাশিত । ফোন: ০২-৭১৯৩৮৭৮ মোবাইল: ০১৮৩৪৮৯৮৫০৪, ০১৭২০০৯০৫১৪
Web: www.dailyasiabani.com ই-মেইল: dailyasiabani2012@gmail.com
   All Right Reserved By www.dailyasiabani.com Developed By: Dynamic Solution IT Dynamic Scale BD & BD My Shop