বাংলার জন্য ক্লিক করুন
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
শিরোনাম : * ফুটবলের উন্নয়নে সহযোগিতা অব্যাহত রাখবে সরকার : প্রধানমন্ত্রী   * রাস্তা বন্ধ না করে আদালতে আসুন : শিক্ষার্থীদের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী   * পশ্চিমবঙ্গে সড়ক দুর্ঘটনায় একই পরিবারের ৬ জন নিহত   * বাংলাদেশ অপ্রতিরোধ্য গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে: প্রধানমন্ত্রী   * কোটা ইস্যুতে কাউকে ঘোলা পানিতে মাছ শিকার করতে দেবে না ছাত্রলীগ   * শিগগির ক্লাসে ফিরছেন বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকরা   * দেশের উত্তর ও মধ্যাঞ্চলে বন্যা পরিস্থিতির কিছুটা উন্নতি   * শেষ ধাপেও কলেজ পায়নি ১২ হাজার শিক্ষার্থী   * তিস্তার ১১০ পয়েন্টে গণ-অবস্থান   * স্কুলের ভবন ধসে নাইজেরিয়ায় বহু হতাহতের শঙ্কা  

   অন্যান্য -
                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                 
বৃষ্টি নিয়ে আজও দুঃসংবাদ দিলো আবহাওয়া অফিস

মৌসুমি বায়ু বাংলাদেশের ওপর মোটামুটি সক্রিয় এবং উত্তর বঙ্গোপসাগরে মাঝারি অবস্থায় অবস্থান করায় অব্যাহত বৃষ্টিপাত কমার সম্ভাবনা নেই, সেই সঙ্গে এর প্রবণতা বাড়তে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।


সোমবার (৮ জুলাই) আবহাওয়া অফিসের দেওয়া সন্ধ্যা ৬টা থেকে পরবর্তী ৭২ ঘণ্টার পূর্বাভাসে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

সংস্থাটি জানায়, মঙ্গলবার (৯ জুলাই) সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত রংপুর, ময়মনসিংহ, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অনেক জায়গায় এবং ঢাকা, রাজশাহী, খুলনা ও বরিশাল বিভাগের দু-এক জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সাথে রংপুর, ময়মনসিংহ, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারী থেকে ভারী বর্ষণ হতে পারে। সারাদেশে দিন এবং রাতের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে।

পরের দুই দিন বুধবার ও বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত দেশের সব বিভাগের আবহাওয়ার অবস্থা অনুরূপ থাকতে পারে।

অন্যদিকে বর্ধিত পাঁচ দিনের আবহাওয়ার অবস্থায় বলা হয়েছে, এ সময়ের শেষের দিকে বৃষ্টিপাতের প্রবণতা বৃদ্ধি পেতে পারে।

বৃষ্টি নিয়ে আজও দুঃসংবাদ দিলো আবহাওয়া অফিস
                                  

মৌসুমি বায়ু বাংলাদেশের ওপর মোটামুটি সক্রিয় এবং উত্তর বঙ্গোপসাগরে মাঝারি অবস্থায় অবস্থান করায় অব্যাহত বৃষ্টিপাত কমার সম্ভাবনা নেই, সেই সঙ্গে এর প্রবণতা বাড়তে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।


সোমবার (৮ জুলাই) আবহাওয়া অফিসের দেওয়া সন্ধ্যা ৬টা থেকে পরবর্তী ৭২ ঘণ্টার পূর্বাভাসে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

সংস্থাটি জানায়, মঙ্গলবার (৯ জুলাই) সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত রংপুর, ময়মনসিংহ, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অনেক জায়গায় এবং ঢাকা, রাজশাহী, খুলনা ও বরিশাল বিভাগের দু-এক জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সাথে রংপুর, ময়মনসিংহ, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারী থেকে ভারী বর্ষণ হতে পারে। সারাদেশে দিন এবং রাতের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে।

পরের দুই দিন বুধবার ও বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত দেশের সব বিভাগের আবহাওয়ার অবস্থা অনুরূপ থাকতে পারে।

অন্যদিকে বর্ধিত পাঁচ দিনের আবহাওয়ার অবস্থায় বলা হয়েছে, এ সময়ের শেষের দিকে বৃষ্টিপাতের প্রবণতা বৃদ্ধি পেতে পারে।

টানা ৭২ ঘণ্টা আবহাওয়া যেমন থাকবে
                                  

সারাদেশে টানা কয়েক দিন বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

রোববার (৫ মে) রাতে আবহাওয়ার সবশেষ পূর্বাভাসে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে বলা হয়, লঘুচাপের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ থেকে বাংলাদেশের দক্ষিণপশ্চিমাঞ্চল হয়ে উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে। এ অবস্থায় রোববার সন্ধ্যা ৬টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশে দিন এবং রাতের তাপমাত্রা এক থেকে তিন ডিগ্রি সেলসিয়াস হ্রাস পেতে পারে। এ সময়ে ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের অধিকাংশ জায়গায়; ঢাকা ও চট্টগ্রাম বিভাগের অনেক জায়গায় এবং রংপুর, রাজশাহী, খুলনা ও বরিশাল বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা অথবা ঝোড়োহাওয়াসহ বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সঙ্গে কোথাও কোথাও বিক্ষিপ্তভাবে শিলাবৃষ্টি হতে পারে।

সোমবার সন্ধ্যা ৬টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টায় ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের অধিকাংশ জায়গায়; ঢাকা ও চট্টগ্রাম বিভাগের অনেক জায়গায় এবং রংপুর, রাজশাহী, খুলনা ও বরিশাল বিভাগে কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সঙ্গে কোথাও কোথাও বিক্ষিপ্তভাবে শিলাবৃষ্টি হতে পারে। সারাদেশে দিন এবং রাতের তাপমাত্রা সামান্য হ্রাস পেতে পারে।

এ ছাড়া মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৬টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টায় ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের অধিকাংশ জায়গায়; ঢাকা ও চট্টগ্রাম বিভাগের অনেক জায়গায় এবং রংপুর, রাজশাহী, খুলনা ও বরিশাল বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা অথবা ঝোড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সঙ্গে কোথাও কোথাও বিক্ষিপ্তভাবে শিলাবৃষ্টি হতে পারে।

বর্ধিত পাঁচ দিনে বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টিপাতের প্রবণতা অব্যাহত থাকতে পারে।

৪৩তম বিসিএসে বাড়ছে পদ, ফল প্রকাশ হতে পারে এ মাসেই
                                  

জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের চাহিদায় ৪৩তম বিসিএসে অতিরিক্ত আরও ৪০৪ জনকে নিয়োগের সুপারিশ করতে যাচ্ছে বাংলাদেশ পাবলিক সার্ভিস কমিশন (বিপিএসসি)।

বিপিএসসি সূত্র জানিয়েছে, নতুন ৪০৪টিসহ বিভিন্ন ক্যাডারে মোট ২ হাজার ২১৮টি শূন্য পদ পূরণে কমিশন শিগগির ৪৩তম বিসিএস পরীক্ষার চূড়ান্ত ফলাফল প্রকাশ করবে। এর সঙ্গে নন-ক্যাডারে এক হাজার ৩৪২টি পদে নিয়োগের সুপারিশ করবে পিএসসি।

নতুন ৪০৪টি পদের মধ্যে কৃষি ক্যাডারে ১৯৫টি, কর ৮২টি, প্রাণিসম্পদে ৮৪টি, খাদ্যে ২৪টি এবং রেলওয়ে (ইঞ্জিনিয়ারিং) ক্যাডারে ১৯টি পদ বাড়ানো হচ্ছে।

২০২১ সালের ২৯ অক্টোবর ৪৩তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা হয়। ২০২২ সালের জুলাইয়ে লিখিত পরীক্ষার কার্যক্রম শুরু করে পিএসসি। গত ২০ আগস্ট লিখিত পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়। এতে উত্তীর্ণ হন ৯ হাজার ৮৪১ জন।

বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী-এ বিসিএসে বিভিন্ন ক্যাডারে ১ হাজার ৮১৪ কর্মকর্তা নেওয়া হবে। এর মধ্যে প্রশাসন ক্যাডারে ৩০০ জন, পুলিশ ক্যাডারে ১০০, পররাষ্ট্র ক্যাডারে ২৫, শিক্ষা ক্যাডারে ৮৪৩, অডিটে ৩৫, তথ্যে ২২, ট্যাক্সে ১৯, কাস্টমসে ১৪ জনকে নিয়োগ দেওয়া হবে। তবে এর সঙ্গে আরও চারশ’র মতো পদ বাড়াছে। ফলে সব মিলিয়ে দুই হাজার দুইশর বেশি পদে নিয়োগের সুপারিশ করা হতে পারে।

এসএসসির রুটিন প্রকাশ
                                  

২০২৪ সালের এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার তারিখ ঘোষণার পাশাপাশি পরীক্ষার রুটিনও প্রকাশ করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২১ ডিসেম্বর) আন্তঃশিক্ষা বোর্ড পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক কমিটির আহ্বায়ক ও ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক প্রফেসর মো. আবুল বাশার এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানান।

এতে বলা হয়, আগামী বছরের এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা ১৫ ফেব্রুয়ারি শুরু হবে। শেষ হবে ১২ মার্চ। পরীক্ষার্থীদের অবশ্যই পরীক্ষা শুরুর ৩০ মিনিট আগে কক্ষে আসন নিতে হবে। পরীক্ষার্থীরা তাদের প্রবেশপত্র নিজ নিজ প্রতিষ্ঠান প্রধানের কাছ থেকে পরীক্ষা শুরু হওয়ার কমপক্ষে তিনদিন আগে সংগ্রহ করবে।

এ ছাড়া পরীক্ষার্থীরা তাদের নিজ নিজ উত্তরপত্রের ওএমআর ফরমে তার পরীক্ষার রোল নম্বর, রেজিস্ট্রেশন নম্বর, বিষয় কোড ইত্যাদি যথাযথভাবে লিখে বৃত্ত ভরাট করবে। কোনো অবস্থাতেই উত্তরপত্র ভাঁজ করা যাবে না।

এসএসসি পরীক্ষার রুটিন

১. বাংলা ১ম পত্র/ সহজ বাংলা ১৫ ফেব্রুয়ারি

২. বাংলা ২য় পত্র/ সহজ বাংলা ২য় পত্র ১৮ ফেব্রুয়ারি

৩. ইংরেজি ১ম পত্র ২০ ফেব্রুয়ারি

৪. ইংরেজি ২য় পত্র ২২ ফেব্রুয়ারি

৫. গণিত ২৫ ফেব্রুয়ারি

৬. ইসলাম ও নৈতিক শিক্ষা, হিন্দু ধর্ম ও নৈতিক শিক্ষা, বৌদ্ধ ধর্ম ও নৈতিক শিক্ষা, খ্রিস্ট ধর্ম ও নৈতিক শিক্ষা ২৭ ফেব্রুয়ারি

৭. তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি ২৮ ফেব্রুয়ারি

গার্হস্থ্য বিজ্ঞান (তত্ত্বীয়), কৃষি শিক্ষা (তত্ত্বীয়), সঙ্গীত (তত্ত্বীয়), আরবি, সংস্কৃত, পালি, শারীরিল শিক্ষা ও ক্রীড়া (তত্ত্বীয়), চারু ও কারুকলা (তত্ত্বীয়) ২৯ ফেব্রুয়ারি

৮. পদার্থ বিজ্ঞান (তত্ত্বীয়), বাংলাদেশের ইতিহাস ও বিশ্বসভ্যতা, ফিন্যান্স ও ব্যাংকিং ৩ মার্চ

৯. রসায়ন (তত্ত্বীয়), পৌরনীতি ও নাগরিকতা, ব্যবসায় উদ্যোগ ৫ মার্চ

১০. ভূগোল ও পরিবেশ ৬ মার্চ

১১. জীব বিজ্ঞান (তত্ত্বীয়), অর্থনীতি ৭ মার্চ

১২. বিজ্ঞান, উচ্চতর গণিত (তত্ত্বীয়) ১০ মার্চ

১৩. হিসাব বিজ্ঞান ১১ মার্চ

১৪. বাংলাদেশ ও বিশ্ব পরিচয় ১২ মার্চ

প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের ফল প্রকাশ হতে পারে আজ
                                  

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক নিয়োগের লিখিত পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হতে পারে আজ ২০ ডিসেম্বর।


বুধবার (২০ ডিসেম্বর) ফল প্রকাশ নিয়ে সভা ডেকেছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর (ডিপিই)। সবকিছু ঠিক থাকলে আজই ফল প্রকাশ হবে। কোনো কারণে আজ ফল প্রকাশ সম্ভব না হলে বৃহস্পতিবার (২১ ডিসেম্বর) ফল প্রকাশ করা হবে।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের একটি সূত্র জানিয়েছে, লিখিত পরীক্ষার উত্তরপত্র যাচাই-বাছাইয়ের কাজ শেষ হয়েছে। ফল প্রকাশের বিষয়ে বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের সাথে অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা সভা করবেন। সভায় সবকিছু চূড়ান্ত আজ রাতে ফল প্রকাশ করা হবে। কোনো কারণে আজ ফল প্রকাশ করা না গেলে আগামীকাল বৃহস্পতিবার ফল প্রকাশ করা হবে।

এ বিষয়ে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সচিব ফরিদ আহমেদ বলেন, আশা করছি আজ বুধবার অথবা আগামীকাল বৃহস্পতিবার সহকারী শিক্ষক নিয়োগের ফল প্রকাশ করা সম্ভব হবে।

উল্লেখ্য, ৮ ডিসেম্বর রংপুর, বরিশাল ও সিলেট বিভাগের আওতাধীন জেলাগুলোয় লিখিত পরীক্ষা সকাল ১০টা থেকে বেলা ১১টা পর্যন্ত অনুষ্ঠিত হয়েছে। তিন বিভাগে এবার মোট পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল ৩ লাখ ৬০ হাজার ৬৯৭ এবং কেন্দ্রের সংখ্যা ছিল ৫৩৫টি।

শিক্ষক নিয়োগের ফল প্রকাশ না করতে নোটিস
                                  

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক নিয়োগে প্রথম ধাপের নিয়োগ পরীক্ষার ফল প্রকাশ ও নিয়োগ প্রক্রিয়া স্থগিত রাখতে ১৩ মন্ত্রণালয়-দপ্তরে নোটিস পাঠানো হয়েছে।

সোমবার (১৮ ডিসেম্বর) ইস্যু করা এ সংক্রান্ত চিঠি মঙ্গলবার (১৯ ডিসেম্বর) রেজিস্ট্রি ডাকযোগে পাঠানো হয়েছে।

নোটিশে বলা হয়, সংবিধানের ১০২ ধারা অনুযায়ী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের গত ৮ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত সহকারী শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা বাতিলের দাবিতে হাইকোর্টে রিট আবেদন করা হয়েছে। এ নিয়োগ পরীক্ষার ৫৪ জন প্রার্থীর পক্ষে ফাতেমা আক্তার নামে একজন প্রার্থী এ রিট আবেদন করেছেন। রিটটি বিচারপতি মোস্তফা জামান ইসলাম ও বিচারপতি মো. আতাবুল্লাহর আদালতে শুনানি হওয়ার কথা রয়েছে। কিন্তু হাইকোর্টের অবকাশের কারণে আগামী ২ জানুয়ারির আগে শুনানির সুযোগ নেই। এ সময়ের মধ্যে এ নিয়োগ প্রক্রিয়ার সবধরনের কার্যক্রম স্থগিত রাখার অনুরোধ করছি।

নোটিশ পাঠানো হয়েছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সচিব, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়, প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর, রংপুর বিভাগীয় কমিশনার, বরিশাল বিভাগীয় কমিশনার, সিলেট বিভাগীয় কমিশনার, প্রাথমিক শিক্ষা অধিপ্তরের রংপুর, বরিশাল ও সিলেটের উপপরিচালক, তিন বিভাগের সব জেলার প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা এবং তিন বিভাগের উপকমিশনারকে।

রিটকারীর পক্ষের আইনজীবী দেলোয়ার হোসেন বলেন, বিষয়টি যেহেতু আদালতে নিষ্পত্তি হওয়ার অপেক্ষায় রয়েছে, এ সময়ের মধ্যে যাতে ফল প্রকাশ ও নিয়োগ প্রক্রিয়ার কোনো কাজ না করা হয়, সেজন্য নোটিশ দিয়েছি আমরা।

উল্লেখ্য, গত ৮ ডিসেম্বর প্রথম ধাপের (রংপুর, বরিশাল ও সিলেট বিভাগ) সহকারী শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। পরীক্ষায় জালিয়াতির অভিযোগে এ পর্যন্ত ১৩৪ জনকে গ্রেপ্তার করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। পরীক্ষার শুরুর কয়েক মিনিটের মধ্যেই প্রশ্নপত্র বাইরে চলে যায় বলেও অভিযোগ ওঠে।

এইচএসসির নির্বাচনী পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা
                                  

২০২৪ সালে‌র এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষায় অংশ নিতে যাওয়া শিক্ষার্থীদের নির্বাচনী পরীক্ষা ফেব্রুয়ারি মাসে অনুষ্ঠিত হবে। আর ফল প্রকাশ করা হবে মার্চে।

মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের উপসচিব মোসা. রোকেয়া পারভীন কর্তৃক মঙ্গলবার (১২ ডিসেম্বর) স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এ তথ্য জানানো হয়।

প্রজ্ঞাপনে আরও জানানো হয়, ২০২৪ সালে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তি কার্যক্রম শুরু হবে ৯ জুন। আর ক্লাস শুরু হবে ২১ জুলাই থেকে। ২০২৩-২৪ শিক্ষাবর্ষের একাদশ শ্রেণির বার্ষিক পরীক্ষা শুরু হবে ২৬ জুন। পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হবে ১৬ জুলাই। এ ছাড়া দ্বাদশ শ্রেণির (২০২২-২৩ শিক্ষাবর্ষ) নির্বাচনী পরীক্ষা শুরু হবে ফেব্রুয়ারিতে এবং ফল প্রকাশ হবে মার্চে।

এইচএসসি পরীক্ষা সম্পর্কে আন্তশিক্ষা বোর্ড পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক কমিটির আহ্বায়ক ও ঢাকা বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক অধ্যাপক মো. আবুল বাশার বলেন, জুন মাসের মাঝামাঝি এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষা নেওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে। এবার পূর্ণ নম্বরে ও সব বিষয়ে পরীক্ষা নেওয়া হবে।

ঘন কুয়াশা থাকতে পারে যতদিন
                                  

আগামী ১৭ ডিসেম্বর পর্যন্ত ঘন কুয়াশা থাকতে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

মঙ্গলবার (১২ ডিসেম্বর) আবহাওয়ার পূর্বাভাসে এ তথ্য জানানো হয়।

আবহাওয়াবিদ ড. আবুল কালাম মল্লিক বলেন, বুধবার থেকে দেশের কয়েকটি জেলায় শৈত্যপ্রবাহ শুরু হতে পারে। সেই সঙ্গে গত কয়েকদিনের তুলনায় সারাদেশেই শীতের অনুভূতি বাড়তে পারে। এ ছাড়া আগামী কয়েকদিন কুয়াশাও থাকবে। মঙ্গলবার মধ্যরাত থেকে আগামী ১৭ ডিসেম্বর সকাল ১০টা থেকে ১১টা পর্যন্ত ঘন কুয়াশা থাকবে।

এদিকে মঙ্গলবার সকালে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে তেঁতুলিয়ায় ১১ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং রাজধানী ঢাকায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ১৬ দশমিক ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

বুধবার থেকে দেশের কয়েকটি জেলার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রির নিচে নেমে যেতে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অফিস।

এবার শৈত্যপ্রবাহের আভাস
                                  

ঘূর্ণিঝড় মিগজাউমের প্রভাব কেটে যাওয়ার পর সারাদেশে শীত অনুভব শুরু হয়েছে পুরোদমে। এদিকে চলতি সপ্তাহের শেষ ভাগে, অর্থাৎ ১৪ থেকে ১৫ ডিসেম্বরের দিকে দেশের উত্তর-উত্তরপশ্চিম অঞ্চলে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানিয়েছেন আবহাওয়াবিদ মো. তরিফুল নেওয়াজ কবির।

সোমবার (১১ ডিসেম্বর) সকাল ৬টায় বদলগাছীতে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১১ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করেছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। ঢাকার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ১৬ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

সংস্থাটির মতে, ডিসেম্বরের গড় স্বাভাবিক সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৪ দশমিক ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

আবহাওয়াবিদরা মনে করছেন, যেহেতু ঘূর্ণিঝড়ের পরে আবহাওয়া পরিস্থিতি এখনও স্বাভাবিক হয়নি, সে কারণে দেশের উত্তরাঞ্চল ও নদী অববাহিকায় দেশের উত্তরাঞ্চল ও নদী অববাহিকায় মাঝারি থেকে ঘন কুয়াশা পড়ছে। হালকা থেকে মাঝারি কুয়াশায় ঢেকে যাচ্ছে অন্য অঞ্চলগুলো।

কুয়াশার কারণে প্রায় দিনই উত্তরাঞ্চলের জেলা নীলফামারীর সৈয়দপুর বিমানবন্দরে দীর্ঘ সময় ফ্লাইট ওঠানামা বন্ধ থাকছে। অনেক সময় ফ্লাইট বাতিল পর্যন্ত করতে হচ্ছে।

আবহাওয়াবিদ মো. তরিফুল নেওয়াজ কবির গণমাধ্যমকে বলেন, গত কয়েক দিন থেকেই উত্তরাঞ্চলে ঘন কুয়াশা দেখা যাচ্ছে। আজ দিবাগত মধ্যরাতেও ঘন কুয়াশা পড়তে পারে। দেশের অন্য এলাকায় হালকা থেকে মাঝারি ধরনের কুয়াশা থাকতে পারে সকাল পর্যন্ত।

তিনি আরও বলেন, চলতি সপ্তাহের শেষ ভাগে, অর্থাৎ ১৪ থেকে ১৫ ডিসেম্বরের দিকে দেশের উত্তর-উত্তরপশ্চিম অঞ্চলে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা দেখা যাচ্ছে। এসব এলাকায় তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে নেমে আসতে পারে।

এদিকে আবহাওয়ার পূর্বাভাস বলছে, মঙ্গলবার থেকে রাতের তাপমাত্রা কমতে শুরু করবে। বুধবার রাতের তাপমাত্রা এক থেকে তিন ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত কমে যেতে পারে। তবে দিনের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে।

হজযাত্রীদের সুখবর দিলো সৌদি সরকার
                                  

এ বছরের হজ আগামী জুনে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। এবার হজযাত্রীর সংখ্যা সীমিত না রাখার পাশাপাশি বয়সসীমাও রাখতে না রাখবে সৌদি সরকার।।

বৃহস্পতিবার (৭ ডিসেম্বর) দেশটির হজ ও ওমরাবিষয়ক মন্ত্রী তৌফিক আল-রাবিয়াহ বলেন, হজযাত্রীর সংখ্যা করোনার আগের সময়ের মতো করা হবে। এতে কোনো বয়সসীমা থাকবে না।

তথ্যমতে, ২০১৯ সালের হজে ২৫ লাখ মুসলমান অংশ নেন। পরের দুই বছর করোনার কারণে হজযাত্রীর সংখ্যা কমানো হয়। ২০২২ সালের হজে প্রায় ৯ লাখ হজযাত্রীর মধ্যে ৭ লাখ ৮০ হাজার ছিলেন সৌদি আরবের বাইরের দেশের। সে সময় হজযাত্রীদের বয়সসীমা ৬৫ বছরের নিচে সীমিত রাখা হয়। বাধ্যতামূলক করা হয় করোনার টিকা ও নেগেটিভ সনদ।

এদিকে, চাঁদ দেখা সাপেক্ষে আগামী বছরের (২০২৪) ১৬ জুন পবিত্র হজ অনুষ্ঠিত হতে পারে। আগামী বছর বাংলাদেশ থেকে এক লাখ ২৭ হাজার ১৯৮ জন হজ করতে পারবেন। হজে যেতে হজযাত্রীদের নিবন্ধন শুরু হয় গত ১৫ নভেম্বর। নিবন্ধনের শেষ সময় আগামী ১০ ডিসেম্বর। কিন্তু ৬ ডিসেম্বর দুপুর পর্যন্ত মাত্র ২ হাজার ৮১০ জন হজযাত্রী নিবন্ধিত হয়েছেন।

অন্যদিকে, আগামী বছর হজে যেতে সরকারিভাবে সাধারণ প্যাকেজে ৫ লাখ ৭৮ হাজার ৮৪০ টাকা খরচ ধরা হয়েছে। বিশেষ হজ প্যাকেজে খরচ হবে ৯ লাখ ৩৬ হাজার ৩২০ টাকা।

এ ছাড়া বেসরকারিভাবে সাধারণ প্যাকেজে হজ পালনে সর্বনিম্ন খরচ হবে ৫ লাখ ৮৯ হাজার ৮০০ টাকা। বিশেষ প্যাকেজে খরচ হবে ৬ লাখ ৯৯ হাজার ৩০০ টাকা।

যে তারিখ থেকে তাপমাত্রা ক্রমান্বয়ে কমতে থাকবে
                                  

ঢাকাসহ সারাদেশে বুধবার থেকেই বৃষ্টি হচ্ছে। বৃহস্পতিবার দেশজুড়ে দিনভর ‍বৃষ্টি থাকলেও শুক্রবার (৮ ডিসেম্বর) সকাল থেকেই মেঘে ছেয়ে আছে আকাশ। আবহাওয়া অধিদপ্তর বলছে, এই মেঘ দু-এক দিনের মধ্যে কেটে যাবে। এরপর বেড়ে যাবে শীত।

আবহাওয়াবিদ ড. মুহাম্মদ আবুল কালাম মল্লিক বলেন, ঘূর্ণিঝড় ‘মিগজাউমের’ প্রভাবে চলমান বৃষ্টিপাতের পর ১০ ডিসেম্বরের পর থেকে তাপমাত্রা ক্রমান্বয়ে কমতে থাকবে। উত্তরাঞ্চলে কোথাও কোথাও তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রির নিচে নেমে আসতে পারে।

আরেক আবহাওয়াবিদ মো. আবদুল মান্নান জানান, ডিসেম্বরের শেষার্ধের দিকে মূলত শীতকালের শুরু। বৃষ্টিপাতের পরপর তাপমাত্রা হঠাৎ নেমে গেলে শীত অনুভূত হবে, তবে প্রকৃত অর্থে এটি শীতকাল নয়।

তিনি বলেন, সর্বনিম্ন তাপমাত্রা কমার পাশাপাশি যখন আকাশ মেঘমুক্ত হয়ে বায়ুমণ্ডল পুরোপুরি শুষ্ক হয়ে যাবে তখন শৈত্যপ্রবাহের পরিস্থিতি সৃষ্টি হবে, যেটা হতে কিছুটা সময় লাগবে। চলতি মাসের সপ্তাহের দিকে একটা মৃদু শৈত্যপ্রবাহ আসার সম্ভাবনা রয়েছে।

উল্লেখ্য, সাধারণত ২৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রাকে স্বস্তিদায়ক বোঝানো হয়। আর ডিসেম্বর থেকে ফেব্রুয়ারি মাসের সময়কালকে শীতকাল হিসেবে ধরা হয়। শীতকালে ২.৬ থেকে শুরু করে ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে তাপমাত্রা নেমে গেলে সেটাকে শৈত্যপ্রবাহ বলা হয়।

২৪ ঘণ্টার মধ্যে যেসব জায়গায় বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে
                                  

দেশের অধিকাংশ জায়গায় আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে বজ্রসহ বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

বুধবার (৬ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় আবহাওয়ার পূর্বাভাসে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে বলা হয়, ভারতের অন্ধ্রপ্রদেশ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থানরত ঘূর্ণিঝড় ‘মিগজাউম’ উত্তর দিকে অগ্রসর ও দুর্বল হয়ে প্রথমে নিম্নচাপ এবং পরবর্তীতে লঘুচাপে পরিণত হয়েছে এবং বর্তমানে উত্তর অন্ধ্রপ্রদেশ ও তৎসংলগ্ন দক্ষিণ ওড়িশা এলাকায় অবস্থান করছে। এর প্রভাবে উত্তর বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন বাংলাদেশের উপকূলীয় অঞ্চলে গভীর সঞ্চালনশীল মেঘমালা সৃষ্টি অব্যাহত রয়েছে।

এ অবস্থায় বুধবার সন্ধ্যা ৬টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টায় রাজশাহী, রংপুর, ঢাকা, খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের অধিকাংশ জায়গায় অস্থায়ী দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেইসঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারী থেকে ভারী বর্ষণ হতে পারে।

এ ছাড়া সারাদেশে রাতের সামান্য হ্রাস পেতে পারে ও দিনের তাপমাত্রা এক থেকে তিন ডিগ্রি সেলসিয়াস হ্রাস পেতে পারে। বর্ধিত পাঁচ দিনে রাতের তাপমাত্রা আরও হ্রাস পেতে পারে।

বুধবার দেশের যেসব জায়গায় বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে
                                  

ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে দেশের বেশ কিছু জায়গায় বজ্রসহ বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

মঙ্গলবার (৫ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় আবহাওয়ার পূর্বাভাসে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে বলা হয়, পশ্চিম-মধ্য বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থানরত প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘মিগজাউম’ আরও উত্তর দিকে অগ্রসর হয়ে
নিলর ও মাসুলিপট্টমের নিকট দিয়ে আজ বিকেল ৩টায় ভারতের অন্ধ্রপ্রদেশ উপকূল অতিক্রম করেছে এবং বর্তমানে অন্ধ্রপ্রদেশ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। এটি স্থলভাগের অভ্যন্তরে আরও অগ্রসর হয়ে ক্রমান্বয়ে দুর্বল হতে পারে।

এ অবস্থায় বুধবার সন্ধ্যা ৬টার মধ্যে রাজশাহী, ঢাকা, খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম, রংপুর, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ী দমকাহাওয়াসহ হালকা বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে।

এ ছাড়া সারাদেশে রাতের তাপমাত্রা সামান্য হ্রাস পেতে পারে এবং দিনের তাপমাত্রা ১ থেকে ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস হ্রাস পেতে পারে।

বর্ধিত পাঁচ দিনে বৃষ্টিপাত হ্রাস পেতে পারে এবং রাতের তাপমাত্রা কমতে পেতে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

ঘূর্ণিঝড় নিয়ে আবহাওয়ার ২০ নম্বর বিশেষ বিজ্ঞপ্তি
                                  

ঘূর্ণিঝড় ‘মিগজাউম’ নিয়ে ২০ নম্বর বিশেষ বিজ্ঞপ্তি দিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

মঙ্গলবার (৫ ডিসেম্বর) বিকেলে বিশেষ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, পশ্চিম-মধ্য বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থানরত প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘মিগজাউম’ আরও উত্তর দিকে অগ্রসর হয়ে নিলর ও মাসুলিপট্টমের নিকট দিয়ে বিকেল ৩টায় ভারতের অন্ধপ্রদেশ উপকূল অতিক্রম করেছে এবং বর্তমানে অন্ধপ্রদেশ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে।

ঘূর্ণিঝড়টি স্থলভাগের অভ্যন্তরে আরও অগ্রসর হয়ে ও বৃষ্টি ঝরিয়ে ক্রমান্বয়ে দুর্বল হতে। এর প্রভাবে উত্তর বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন বাংলাদেশের উপকূলীয় অঞ্চলে গভীর সঞ্চালনশীল মেঘমালার সৃষ্টি হচ্ছে।

এ অবস্থায় চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরকে ২ নম্বর দূরবর্তী হুঁশিয়ারি সংকেত নামিয়ে তার পরিবর্তে ৩ নম্বর স্থানীয় সর্তক সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে।

উত্তর বঙ্গোপসাগর ও গভীর সাগরে অবস্থানরত সকল মাছ ধরার নৌকা ও ট্রলারকে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত উপকূলের কাছাকাছি থেকে সাবধানে চলাচল করতে বলা হয়েছে।

উল্লেখ্য, এই সিরিজে আর কোনো আবহাওয়ার বিশেষ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করবে না আবহাওয়া অধিদপ্তর।

শৈত্যপ্রবাহ কবে থেকে, জানাল আবহাওয়া অফিস
                                  

ডিসেম্বরের শেষ দিকে মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

চলতি মাসের দীর্ঘমেয়াদি পূর্বাভাসে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে আরও বলা হয়, ডিসেম্বর মাসে সামগ্রিকভাবে দেশে স্বাভাবিক অপেক্ষা সামান্য বেশি বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। এ মাসে দিন ও রাতের তাপমাত্রা ক্রমান্বয়ে কমতে পারে। তবে, মাসব্যাপী দিন ও রাতের তাপমাত্রা স্বাভাবিকের চেয়ে কিছুটা বেশি থাকতে পারে।

পূর্বাভাসে আরও বলা হয়, এ মাসের শেষার্ধে দেশের কোথাও কোথাও এক থেকে দুটি মৃদু (৮-১০ ডিগ্রি সেলসিয়াস) বা মাঝারি (৬-৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস) শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে।

এ ছাড়া এ মাসে দেশের নদী অববাহিকায় ভোররাত থেকে সকাল পর্যন্ত মাঝারি থেকে ঘন এবং অন্যত্র হালকা থেকে মাঝারি ধরনের কুয়াশা পড়তে পারে।

এদিকে, মঙ্গলবার (৫ ডিসেম্বর) সকাল ৯টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, রাজশাহী, ঢাকা, খুলনা, বরিশাল এবং চট্টগ্রাম বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় এবং রংপুর, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের দু-এক জায়গায় অস্থায়ী দমকা হাওয়াসহ হালকা বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে।

এ সময়ে সারাদেশে রাতের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে এবং দিনের তাপমাত্রা দুই থেকে চার ডিগ্রি সেলসিয়াস হ্রাস পেতে পারে।

এনসিটিবি’র সতর্কীকরণ বিজ্ঞপ্তিতে আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার হুঁশিয়ারি
                                  

জাতীয় শিক্ষাক্রম সম্পর্কে মিথ্যা তথ্য পরিবেশন ও ভুল ব্যাখ্যা দেওয়ার সতর্কীকরণ বিজ্ঞপ্তি দিয়ে আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছে জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ড (এনসিটিবি)।

রোববার (৩ ডিসেম্বর) এনসিটিবির সচিব নাজমা আখতার স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে এ ‍হুঁশিয়ারি দেওয়া হয়।

এতে বলা হয়, সংশ্লিষ্ট সকলকে জানানো যাচ্ছে যে, জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ড প্রাক প্রাথমিক হতে উচ্চমাধ্যমিক স্তর পর্যন্ত শিক্ষার্থীদের শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক প্রণয়নের একমাত্র জাতীয় প্রতিষ্ঠান। বাংলাদেশের মানসম্পন্ন শিক্ষা উন্নয়ন ও প্রসারে এই প্রতিষ্ঠান গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে। আমরা লক্ষ্য করছি স্বার্থান্বেষী একটি গোষ্ঠী সম্প্রতি নতুন জাতীয় শিক্ষাক্রম সম্পর্কে মিথ্যা তথ্য পরিবেশন ও ভুল ব্যাখ্যা দিয়ে জনমনে বিরূপ মনোভাব সৃষ্টির চেষ্টা চালাচ্ছে। এর অংশ হিসেবে সাধারণ মানুষের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত লাগে বা আমাদের জাতীয় সংস্কৃতি ও মূল্যবোধের পরিপন্থি কাজকে শিক্ষাক্রমের কাজ বলে প্রচার করা হচ্ছে।

‘নবীর ছবি আঁকতে বলা হয়েছে লিখে মিথ্যাচার করছে। হিন্দি গানের সঙ্গে স্কুলের পোশাক পরা কিছু ছেলেমেয়ে ও ব্যক্তির অশ্লীল নাচ আপলোড করে বলা হচ্ছে শিক্ষাক্রমের নির্দেশনা, যা সর্বৈব মিথ্যা। কিছু লোক ব্যাঙের লাফ বা হাঁসের ডাক দিচ্ছে, এমন ভিডিও আপলোড করে বলা হচ্ছে। এটা নতুন শিক্ষাক্রমের শিক্ষক প্রশিক্ষণের অংশ, যা সম্পূর্ণ মিথ্যাচার। নতুন শিক্ষাক্রমে সকল ধর্ম বর্ণের মানুষের প্রতি শ্রদ্ধা ও সম্মান প্রদর্শনের কথা বলা হয়েছে।’

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, আমাদের ইতিহাস, ঐতিহ্য, সংস্কৃতিকে ভবিষ্যৎ প্রজন্মের মধ্যে বিকশিত করার ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। মিথ্যা অপপ্রচারের মাধ্যমে কোমলমতি শিক্ষার্থীদের শিক্ষা কার্যক্রমকে বিপন্ন করার প্রচেষ্টা যারা করছেন, তাদের এরূপ কাজ থেকে বিরত থাকার জন্য সতর্ক করা হচ্ছে। শিক্ষাক্রমের কোনো ত্রটিবিচ্যুতি থাকলে তা আমাদের জানালে আমরা অবশ্যই তা বিবেচনা করে প্রয়োজনীয় সংশোধন, পরিমার্জন করব, কিন্তু অপপ্রচার করলে তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

‘এমতাবস্থায় সর্বসাধারণকে মিথ্যা প্রচারণায় বিভ্রান্ত না হওয়ার জন্য এনসিটিবি অনুরোধ জানাচ্ছে এবং এরূপ মিথ্যা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে আপলোড, শেয়ার বা কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকার জন্য অনুরোধ জানানো যাচ্ছে।’


   Page 1 of 12
     অন্যান্য
বৃষ্টি নিয়ে আজও দুঃসংবাদ দিলো আবহাওয়া অফিস
.............................................................................................
টানা ৭২ ঘণ্টা আবহাওয়া যেমন থাকবে
.............................................................................................
৪৩তম বিসিএসে বাড়ছে পদ, ফল প্রকাশ হতে পারে এ মাসেই
.............................................................................................
এসএসসির রুটিন প্রকাশ
.............................................................................................
প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের ফল প্রকাশ হতে পারে আজ
.............................................................................................
শিক্ষক নিয়োগের ফল প্রকাশ না করতে নোটিস
.............................................................................................
এইচএসসির নির্বাচনী পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা
.............................................................................................
ঘন কুয়াশা থাকতে পারে যতদিন
.............................................................................................
এবার শৈত্যপ্রবাহের আভাস
.............................................................................................
হজযাত্রীদের সুখবর দিলো সৌদি সরকার
.............................................................................................
যে তারিখ থেকে তাপমাত্রা ক্রমান্বয়ে কমতে থাকবে
.............................................................................................
২৪ ঘণ্টার মধ্যে যেসব জায়গায় বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে
.............................................................................................
বুধবার দেশের যেসব জায়গায় বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে
.............................................................................................
ঘূর্ণিঝড় নিয়ে আবহাওয়ার ২০ নম্বর বিশেষ বিজ্ঞপ্তি
.............................................................................................
শৈত্যপ্রবাহ কবে থেকে, জানাল আবহাওয়া অফিস
.............................................................................................
এনসিটিবি’র সতর্কীকরণ বিজ্ঞপ্তিতে আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার হুঁশিয়ারি
.............................................................................................
ঘূর্ণিঝড় নিয়ে সর্বশেষ যে তথ্য দিলো আবহাওয়া অফিস
.............................................................................................
ফের পেছাল প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা
.............................................................................................
মেলবোর্নে আন্তর্জাতিক বাণিজ্য প্রদর্শনীতে ১৯ বাংলাদেশি প্রতিষ্ঠানের অংশগ্রহণ
.............................................................................................
ডেঙ্গুর প্রথম ওষুধের ট্রায়ালে দারুণ সাফল্য
.............................................................................................
বদলির সুযোগ পাচ্ছেন এমপিওভুক্ত শিক্ষকরা
.............................................................................................
আরও ৮ জনের করোনা শনাক্ত
.............................................................................................
এইচএসসির ফল প্রকাশের সম্ভাব্য তারিখ
.............................................................................................
দেশের ১৩ চিকিৎসককে সম্মাননা দিলো লাইফস্প্রিং
.............................................................................................
১২ অক্টোবর: ইতিহাসে আজকের এই দিনে
.............................................................................................
অধ্যাপক পদে আরও ২১ চিকিৎসকের পদোন্নতি
.............................................................................................
১৫ অক্টোবর ৪৩তম বিসিএসের ভাইভা শুরু
.............................................................................................
টিউশন ফি নিয়ে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কঠোর নির্দেশনা
.............................................................................................
জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪টি পরীক্ষা স্থগিত
.............................................................................................
এআই ফিচারসহ আসছে গুগলের পিক্সেল-৮
.............................................................................................
শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে বেতন নেওয়া নিয়ে মাউশির নির্দেশনা
.............................................................................................
রসায়নে নোবেল পেলেন তিন বিজ্ঞানী
.............................................................................................
ফ্রিল্যান্সারদের সুখবর দিলেন আইসিটি প্রতিমন্ত্রী
.............................................................................................
পাখিপ্রেমিদের প্রিয় প্লাটফর্ম ‌‘বার্ডস ভ্যালি’
.............................................................................................
‘সবার জন্য সুস্থ ফুসফুস’
.............................................................................................
সৌদি আরবের অনেক কোম্পানি বাংলাদেশে বিনিয়োগে আগ্রহী : রাষ্ট্রদূত
.............................................................................................
আগামী বছর বাজারে আসছে দেশে নির্মিত প্রথম ইলেকট্রিক গাড়ি
.............................................................................................
ডেঙ্গু আক্রান্ত কাউকে ঢাকায় স্থানান্তর না করার নির্দেশ
.............................................................................................
চতুর্থ আন্তর্জাতিক অণুজীব দিবস উদযাপন
.............................................................................................
ওমরাহ পালনে নারীদের পোশাক নির্ধারণ করে দিল সৌদি
.............................................................................................
ইউএসবি-সি চার্জিং পোর্টসহ নতুন যা রয়েছে আইফোন ১৫-তে
.............................................................................................
শিক্ষক নিবন্ধনের মৌখিক পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা
.............................................................................................
২০২৪ সালের রমজান ও ঈদের সম্ভাব্য তারিখ প্রকাশ
.............................................................................................
সিডনির নিউ সাউথ ওয়েলস ইউনিভার্সিটিতে বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য স্থাপনের আহ্বান
.............................................................................................
করোনায় মৃত্যু নেই, শনাক্ত ৭
.............................................................................................
ডেঙ্গু হতে পারে সারা বছরের অসুখ
.............................................................................................
ডেঙ্গুতে ভিকারুননিসার ছাত্রীর মৃত্যু
.............................................................................................
ফিজিওথেরাপিস্টদের নিবন্ধন ও প্রতিষ্ঠানগুলোকে নজরদারির দাবি
.............................................................................................
আরও ১৬ জনের করোনা শনাক্ত
.............................................................................................
সাশ্রয়ী মূল্যে বিশ্বমানের স্বাস্থ্যসেবা দিতে টার্কিশডকের যাত্রা শুরু
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক : মো: তাজুল ইসলাম
প্রধান কার্যালয়: ২১৯ ফকিরের ফুল (১ম লেন, ৩য় তলা), মতিঝিল, ঢাকা- ১০০০ থেকে প্রকাশিত । ফোন: ০২-৭১৯৩৮৭৮ মোবাইল: ০১৮৩৪৮৯৮৫০৪, ০১৭২০০৯০৫১৪
Web: www.dailyasiabani.com ই-মেইল: [email protected]
   All Right Reserved By www.dailyasiabani.com Dynamic Scale BD