| বাংলার জন্য ক্লিক করুন
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
শিরোনাম : * বিছানায় উঠে বসেছেন বরিস জনসন   * অনির্দিষ্টকালের জন্য ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্লাস-পরীক্ষা স্থগিত   * করোনায় ভক্তদের পাশেই শ্রেয়া ঘোষাল   * করোনায় নতুন করে ১১২ জন আক্রান্ত ব্যক্তি শনাক্ত   * মিয়ানমার নৌবাহিনীর গুলিতে ৬ বাংলাদেশি আহত   * নরসিংদী জেলাকে লকডাউন ঘোষণা   * একাকী ইবাদতের মাধ্যমে শবেবরাত পালন করুন : আল্লামা শফী   * বঙ্গবন্ধুর খুনি মাজেদের প্রাণভিক্ষার আবেদন খারিজ   * করোনায় বিশ্বে মৃতের সংখ্যা ৮৮ হাজার ছাড়াল, আক্রান্ত ১৫ লাখ   * করোনা উপসর্গে কুমিল্লায় এইচএসসি পরীক্ষার্থীর মৃত্যু  

   রাজনীতি -
                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                 
করোনা মোকাবিলায় আজ সুনির্দিষ্ট প্রস্তাবনা দেবে বিএনপি

অনলাইন ডেস্ক : করোনাভাইরাস মোকাবিলায় সরকারের পদক্ষেপের এখনও ঘাটতি রয়েছে বলে মনে করে আজ বিএনপির পক্ষ থেকে বিভিন্ন সেক্টরভিত্তিক প্রস্তাবনা তুলে ধরা হবে। তা বাস্তবায়নে স্বল্প-দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা এবং কী পরিমাণ বাজেটের দরকার হবে তারও ধারণা দেয়া হবে বলে জানিয়েছে দলটি। 

বিএনপির পক্ষ থেকে শনিবার (৪ এপ্রিল) সংবাদ সম্মেলন করে এই প্রস্তাবনা দেয়া হবে।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ শুক্রবার গণমাধ্যমকে বলেন, করোনাভাইরাস মোকাবিলায় আমরা সরকারকে অনেকগুলো প্রস্তাবনা দেব। কীভাবে এই ভাইরাস থেকে জনগণ ও দেশের অর্থনীতিকে সুরক্ষা দেয়া যায় তার জন্য দীর্ঘমেয়াদি, স্বল্প ও মধ্য মেয়াদি প্রস্তাবনা তুলে ধরা হবে।

মওদুদ আরও বলেন, আমরা মনে করি করোনা পরিস্থিতি মেকাবিলায় সরকার সম্পূর্ণভাবে নিষ্ক্রিয়। এতদিন পর তাদের জ্ঞান ফিরেছে। এখন তারা বলছে আরও শনাক্ত করতে হবে। জেলায় জেলায় শনাক্ত করতে হবে। বাড়িতে-বাড়িতে যেতে হবে। এসব কথা তারা কেন প্রথম দিকে বলে নাই। আগে সরকার একেবারেই নিষ্ক্রিয় ছিল, অত্যন্ত উদাসীন ছিল। তাদের এমন একটা ভাব ছিল যে, করোনা মনে হয় বাংলাদেশে আসবে না বা আক্রমণ করবে না। তারা যে ভুলে ছিল, সেটা এখন বুঝতে পারছে। আমরা কালকে (শনিবার) সব প্রস্তাবনা তুলে ধরব।

প্রস্তাবনাগুলোর মধ্যে চিকিৎসক, স্বাস্থ্যকর্মী ও শ্রমজীবী মানুষের জন্য সুনির্দিষ্ট প্রস্তাবনা থাকবে বলেও জানান মওদুদ আহমদ।

করোনা মোকাবিলায় আজ সুনির্দিষ্ট প্রস্তাবনা দেবে বিএনপি
                                  

অনলাইন ডেস্ক : করোনাভাইরাস মোকাবিলায় সরকারের পদক্ষেপের এখনও ঘাটতি রয়েছে বলে মনে করে আজ বিএনপির পক্ষ থেকে বিভিন্ন সেক্টরভিত্তিক প্রস্তাবনা তুলে ধরা হবে। তা বাস্তবায়নে স্বল্প-দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা এবং কী পরিমাণ বাজেটের দরকার হবে তারও ধারণা দেয়া হবে বলে জানিয়েছে দলটি। 

বিএনপির পক্ষ থেকে শনিবার (৪ এপ্রিল) সংবাদ সম্মেলন করে এই প্রস্তাবনা দেয়া হবে।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ শুক্রবার গণমাধ্যমকে বলেন, করোনাভাইরাস মোকাবিলায় আমরা সরকারকে অনেকগুলো প্রস্তাবনা দেব। কীভাবে এই ভাইরাস থেকে জনগণ ও দেশের অর্থনীতিকে সুরক্ষা দেয়া যায় তার জন্য দীর্ঘমেয়াদি, স্বল্প ও মধ্য মেয়াদি প্রস্তাবনা তুলে ধরা হবে।

মওদুদ আরও বলেন, আমরা মনে করি করোনা পরিস্থিতি মেকাবিলায় সরকার সম্পূর্ণভাবে নিষ্ক্রিয়। এতদিন পর তাদের জ্ঞান ফিরেছে। এখন তারা বলছে আরও শনাক্ত করতে হবে। জেলায় জেলায় শনাক্ত করতে হবে। বাড়িতে-বাড়িতে যেতে হবে। এসব কথা তারা কেন প্রথম দিকে বলে নাই। আগে সরকার একেবারেই নিষ্ক্রিয় ছিল, অত্যন্ত উদাসীন ছিল। তাদের এমন একটা ভাব ছিল যে, করোনা মনে হয় বাংলাদেশে আসবে না বা আক্রমণ করবে না। তারা যে ভুলে ছিল, সেটা এখন বুঝতে পারছে। আমরা কালকে (শনিবার) সব প্রস্তাবনা তুলে ধরব।

প্রস্তাবনাগুলোর মধ্যে চিকিৎসক, স্বাস্থ্যকর্মী ও শ্রমজীবী মানুষের জন্য সুনির্দিষ্ট প্রস্তাবনা থাকবে বলেও জানান মওদুদ আহমদ।

স্বাস্থ্যকর্মীদের নিরাপত্তা পোশাক নিশ্চিতের দাবি অলির
                                  

অনলাইন ডেস্ক : এ মুহূর্তে স্বাস্থ্যকর্মীদের নিরাপত্তামূলক পোশাক নিশ্চিত করার দাবি জানিয়েছেন লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টির (এলডিপি) প্রেসিডেন্ট ড. কর্নেল (অব) অলি আহমদ।

বুধবার এলডিপির সাংগঠনিক সম্পাদক সালাহ উদ্দীন রাজ্জাকের স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে তিনি এ দাবি জানান।

অলি বলেন, করোনাভাইরাস শ্রমজীবী ও গরিব-দুঃখী মানুষকে অসহায় অবস্থায় ঠেলে দিয়েছে। গরিব-দুঃখী-অভাবী মানুষের জন্য এ সংকটময় মুহূর্তে খেয়ে-পরে বেঁচে থাকা কষ্টসাধ্য হয়ে পড়েছে।

‘মহাদুর্যোগের এই সময়ে সমাজের অবস্থাসম্পন্ন মানুষ ও সামাজিক সংগঠনগুলোকে বিপন্ন জনগোষ্ঠীর পাশে দাঁড়ানোর বিষয়টি প্রাসঙ্গিক হয়ে উঠেছে।’

তিনি বলেন, সরকারের দায়িত্ব হচ্ছে– এ মুহূর্তে প্রতিটি জেলা-উপজেলায় ডাক্তার এবং স্বাস্থ্যকর্মীদের জন্য নিরাপত্তা পোশাক নিশ্চিত করা। ৬৪ জেলায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে কিনা; তার পরীক্ষার ব্যবস্থা করা।

তিনি আশা প্রকাশ করে বলেন, দলমত-নির্বিশেষে যাদের সামর্থ্য আছে, তারা জাতীয় দুর্যোগের এ মুহূর্তে ক্ষুধাকাতর মানুষের পাশে দাঁড়াবেন। বাড়িয়ে দেবেন সহায়তার হাত। মানুষ মানুষের জন্য- এ উপলব্ধি মূর্তমান করতে এগিয়ে আসবেন সবাই।

করোনা মোকাবেলায় জাতীয় কমিটি চান মির্জা ফখরুল
                                  

অনলাইন ডেস্ক : বৈশ্বিক মহামারী করোনাভাইরাস মোকাবেলায় জাতীয় কমিটি গঠন করা উচিত মনে করেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

তিনি বলেন, এ কথাটা বার বার বলেছি, আমরা কখনোই সমালোচনার জন্য সমালোচনা করছি না, সরকারকে সাহায্য করতে চেয়েছি। আসুন আমরা সবাই একসঙ্গে কাজ করি, ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করি।

সোমবার দুপুরে নিজের উত্তরার বাসায় কয়েকটি গণমাধ্যমের সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে বিএনপি মহাসচিব এসব কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, এখন পর্যন্ত একটি জাতীয় কমিটি হয়নি। যেটা করা উচিত ছিল বলে আমি মনে করি। বাংলাদেশ তো একশ ৬০ মিলিয়নের দেশ। এখানে একেবারের নিচের দিককার অর্থনীতি। সেখানে এই ধরনের সংকট মোকাবেলার ক্ষেত্রে যদি একটি জাতীয় ঐক্য সৃষ্টি করা যায়; সেটাই হবে দেশের জন্য ভালো কাজ।

তিনি বলেন, আমরা মনে করি যে, এখনও সময় আছে জাতীয় কমিটি করার, এটা গঠন করা উচিত।

কীভাবে এই কমিটি হতে পারে জানতে চাইলে বিএনপি মহাসচিব বলেন, এটা আমি আগেও বলেছি। প্রধানমন্ত্রীকেই উদ্যোগ নিতে হবে, আপনার পলিটিক্যাল পার্টি, সিভিল সোসাইটি..। নট দ্যাট, এগুলোকে নিয়ে একখানে বসে মিটিং করতে হবে- তা বলছি না। ঘোষণা করে আপনি ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমেই এটা করতে পারেন।

‘তখন সবার মধ্যে একটা ধারণা আসবে- ‘উই আর ওয়ান’। আমরা এক। দে কেন ডু। অথবা ওইভাবে সব নিরাপত্তা রেখে যদি সভা করতে চান; তাও পারেন।’

এই মহামারীতে বিএনপির নেতাকর্মীরা নিজেদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করেই ঘরবন্দি মানুষ বিশেষ করে খেটে খাওয়া মানুষজনের জন্য খাবার পৌঁছে দেয়ার কাজ করছে বলে জানান মির্জা ফখরুল।

দেশের অর্থনৈতিক সংকটের প্রসঙ্গ টেনে তিনি বলেন, সবচেয়ে বড় যে সমস্যাটা দাঁড়াচ্ছে, সেটা হচ্ছে খেটে খাওয়া মানুষজনের অর্থনৈতিক সমস্যা।

তার মতে, বাংলাদেশে বেশিভাগ মানুষই এখন দিন আনে দিন খায়- এই বিশাল একটা অংশ তারা কিন্তু কয়েকদিন ধরে কোনো আয় করতে পারছেন না এবং এটা একটা টার্নিং পজিশনে চলে যাওয়ার উপক্রম হয়েছে।

‘সেই মানুষগুলোর জন্য যদি ইমিডিয়েটলি উপযোগী কার্য্করী ব্যবস্থা গ্রহণ করা না যায়; তাহলে কিন্তু একটা বড় রকমের বিপর্য্য় দেখা দেবে। যেটা আমরা ১৯৭৪ সালে দেখেছি, এই ধরনের বিপর্য্য় দেখা দেবে। এই বিষয়গুলো সরকারের দেখতে হবে।’

বিএনপি মহাসচিব আরও বলেন, আমি যেটা মনে করি, সেনাবাহিনীকে যদি সেই কাজে লাগানো যায়, নির্বাচিত জনপ্রতিনিধি যারা আছেন, একেবারে তৃণমূল পর্যায়ে ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান-মেম্বর যারা আছেন, তাদের সম্পৃক্ত করে যদি সেই কাজগুলো করা যায়, তাহলে রাজনৈতিক দলগুলোকে যদি সম্পৃক্ত করা যায়, তাদেরকে একসঙ্গে করা যায়- অত্যন্ত ফলপ্রসূ হবে। সেক্ষেত্রে বরাদ্দ থাকতে হবে, তার জন্য পর্যাপ্ত খাদ্য সামগ্রী থাকতে হবে।

হাসপাতালের চিকিৎসা সেবার প্রসঙ্গ টেনে ফখরুল বলেন, হাসপাতালগুলোতে ডাক্তার পাওয়া যাচ্ছে না। অন্য কোনো রোগে কেউ অসুস্থ হয়ে গেলে …। আজকের পত্রিকায় আছে যে, একজন এপেনডিসাইটিজের রোগী ৮টা হাসপাতালে ঘুরে আল্ট্রাসনোগ্রাম করতে পারছেন না। আমরা যে কারণে বার বার বলেছি, বিষয়টাকে পুরোপুরি রাজনৈতিক দৃষ্টিকোণ থেকে না দেখে মানবিক দিক থেকে দেখে এই জাতিকে রক্ষায় এগিয়ে আসতে হবে।

তিনি বলেন, এটা অস্তিত্বের প্রশ্ন। সেই অস্তিত্বের জন্য এখন সরকারকে উদ্যোগী ভূমিকা নিতে হবে। বিষয়টার দায় সরকারের, দায়িত্ব সরকারের।

‘তাকেই উদ্যোগটা নিতে হবে- বিরোধী দলকে কীভাবে কাজে লাগাবে, সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের কীভাবে কাজে লাগাবে, পরিবেশ কীভাবে সৃষ্টি করবে। এখানে সমস্যা অনেক। আমরা মনে করি, সরকারের অনেক অনেক বেশি দায়িত্ব, তাদের উদ্যোগী হওয়া প্রয়োজন।’

সরকারের একটা ভুলের কথা উল্লেখ করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, আমি মনে করি, এটা বড় ভুল হয়েছে যে, ছুটি ঘোষণা করে তার দুদিন পর পর্যন্ত গণপরিবহন চালু রাখা। এতে করে সমস্ত মানুষ ছড়িয়ে গেছে সারাদেশে।

মির্জা ফখরুল বলেন, সমস্যাগুলো প্রথম থেকে তারা (সরকার) দেখলে এটা প্রকট আকার ধারণ করত না। লকডাউন যেটাকে বলে, তা সেভাবে হয়নি। যার ফলে দেখা গেছে, প্রথম দু-একদিন কক্সবাজারে পর্যন্ত মানুষ বেড়াতে গেছে, ছুটি কাটাতে সিলেটে গেছে। আমাদের দেশে সবাই তো সচেতন না, অনেকে বুঝতে পারেনি।

নো টেস্ট, নো করোনা- পলিসিতে সরকার‌
                                  

অনলাইন ডেস্ক : মহামারী করোনাভাইরাস নিয়ে বর্তমান সরকারের পলিসি জনগণের কাছে একদম পরিষ্কার বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মাহসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী।

তিনি বলেন, সরকারের পলিসি হল, `নো কিট, নো করোনা। নো টেস্ট, নো করোনা। নো পেশেন্ট, নো করোনা। যে পলিসি করে ইরান ও ইতালি সরকার তাদের দেশের সর্বনাশ করেছে। বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে গোটা বিশ্ব থেকে। অথচ আমরাও সেই লুকানোর পলিসি দিয়েই সবকিছু ম্যানেজ করতে চলেছি। উল্টো প্রাণঘাতি করোনা ভাইরাস সংক্রমণ নিয়ে সরকারের এই লুকানো পলিসি যাতে কেউ প্রকাশ না করতে পারে তার জন্য নানা রকমের অপচেষ্টা চালাচ্ছে। এই লুকানোর পলিসির নাম দিয়েছে `গুজব`।`

সোমবার দুপুরে নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

রিজভী বলেন, `আজ এমন এক অকল্পনীয় ভয়াবহ পরিস্থিতিতে আপনাদের সমীপে উপস্থিত হয়েছি, যখন করোনা ভাইরাসের মহাদুর্যোগের কারণে সামনে বসে সরাসরি কথা বলার মতো পরিবেশ নেই। কোভিড-১৯ ভাইরাস দ্রুত ছড়িয়ে পড়ার মধ্য দিয়ে বৈশ্বিক মহামারীতে রূপ নিয়েছে`।

তিনি বলেন, অত্যন্ত পরিতাপের বিষয় যে, দুই মাস সময় পেলেও সরকার সমস্যার দিকে কোনও মনোযোগ দেয়নি। উপদ্রুত দেশগুলো থেকে দেশে প্রত্যাবর্তনকারী প্রবাসী ভাই-বোনদের বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নির্দেশনা অনুসরণে কোয়ারেন্টাইন করার সরকারি ব্যর্থতা প্রমাণ করে যে, সমন্বয়হীনতা ও প্রস্তুতির অভাব দেশকে কত বড় বিপদে ফেলতে পারে।`

রিজভী আরও বলেন, `মহাবিপদ মোকাবেলায় সরকারের প্রস্তুতি নেই, সমন্বয় নেই, আক্রান্ত রোগী শনাক্তকরণের পর্যাপ্ত উপকরণ ও ব্যবস্থাপনা দেশে নেই; নেই চিকিৎসকদের রক্ষার ব্যবস্থা, নেই যথেষ্ট মাস্ক, স্যানিটাইজার ও ভেন্টিলেটর`।

তিনি বলেন, `পরীক্ষার ব্যবস্থা ছাড়া সরকার আক্রান্ত সংখ্যার যে তথ্য দিচ্ছে তা বিশ্বাসযোগ্যতা পাচ্ছে না। সরকারের পক্ষ থেকে টানা দু`দিন বলা হচ্ছে- `দেশে নতুন করে করোনা আক্রান্ত নেই। অথচ পত্র-পত্রিকা, টেলিভিশনসহ মিডিয়ায় প্রতিদিন সর্দি, জ্বর, কাশিতে মারা যাওয়ার খবর দিচ্ছে। করোনা ভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে ২৪ ঘণ্টায় পাঁচজনের মৃত্যুর সংবাদ ছাপা হয়েছে আজকের খবরের কাগজে। কী ভীতিকর পরিস্থিতি! ইলেকট্রনিক্স, প্রিন্ট মিডিয়ার খবরের সঙ্গেও সরকারের ব্রিফিংয়ের আকাশ-পাতাল ব্যবধান। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) বারবার বলে আসছে, করোনা আক্রান্তদের শনাক্ত করতে যত বেশি সম্ভব পরীক্ষা করতে হবে। অথচ সরকারের পুরো ব্যবস্থাপনা হলো পানিতে হালবিহীন নৌকার দুরাবস্থা যেমন।`

রিজভী বলেন, `দীর্ঘদিন সময় পেয়েও জেলা পর্যায়ে করোনা পরীক্ষা-নিরীক্ষার সরঞ্জামাদি সরবরাহ করতে ব্যর্থ হয়েছে। জেলা-উপজেলা পর্যায়ে ডাক্তার এবং স্বাস্থ্যকর্মীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার দায়িত্ব ছিলো সরকারের। সে দায়িত্ব পালনে তারা সম্পূর্ণ ব্যর্থ হয়েছে। `দিন এনে দিন খাওয়া` পরিবারগুলোর খাদ্য সংকট আগামীতে আরও বাড়বে। সেই সংকট যেন বড় বিপদ না হয়ে ওঠে, সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে। জরুরি ভিত্তিতে খেটে খাওয়া মানুষকে খাদ্য সরবরাহ নিশ্চিত করতে হবে। প্রণোদনা বাড়াতে হবে।`

আনুষ্ঠানিকতা শেষে খালেদা জিয়ার মুক্তি: কাদের
                                  

অনলাইন রিপোর্টার:

আনুষ্ঠানিকতা শেষ হলেই বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে মুক্তি দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, আশা করি বিএনপি করোনা মোকাবিলায় সর্বাত্মক সহযোগিতা করবে। বুধবার (২৫ মার্চ) সচিবালয়ে সড়ক পরিবহন সেতুমন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে তিনি একথা বলেন।

সেতুমন্ত্রী বলেন, খালেদা জিয়ার শাস্তি ৬ মাসের জন্য স্থগিত করে প্রধানমন্ত্রী তার প্রজ্ঞা, অভিজ্ঞ এবং দূরদর্শী নেতৃত্ব পরিচয় দিয়ে নৈতিক ও মানবিকতার অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। আশা করি, বিএনপি এ বিষয়টি ইতিবাচক দৃষ্টিকোন থেকে দেখে আমাদের সবার অভিন্ন শত্রু করোনা মোকাবিলায় সরকারের সর্বাত্মাক ও সম্মেলিত উদ্যোগের সহযোগি হবে।

তিনি বলেন, খালেদা জিয়ার পরিবার স্বরাষ্ট্র ও আইন মন্ত্রনালয়ে আবেদন জানালে সরকার এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ১০ থেকে ১১ দিন আগে তারা আবেদন করেছে। ইচ্ছে করলে পরিবার আরও আগেই আবেদন করতে পারতেন। খালেদা জিয়া যেকোনো মুহুর্তে ছাড়া পেতে পারেন। কিছু আনুষ্ঠানিকতার বিষয় রয়েছে। আনুষ্ঠানিকতা শেষ হলে তিনি মুক্তি পাবেন।

 
তিন আসনেই জয়ী আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থীরা
                                  

জাতীয় সংসদের শূন্য ঘোষিত ঢাকা-১০, গাইবান্ধা-৩ এবং বাগেরহাট-৪ সংসদীয় আসনের উপনির্বাচনে ভোট হয়েছে শনিবার। ভোটের ফলাফলে তিনটি আসনেই জয়ী হয়েছেন আওয়ামী লীগের প্রার্থীরা। এর মধ্যে ঢাকা-১০ এর উপনির্বাচনে মো. শফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন, বাগেরহাট-৪ আসনে অ্যাডভোকেট আমিরুল আলম মিলন এবং গাইবান্ধা-৩ আসনে অ্যাডভোকেট উম্মে কুলসুম স্মৃতি নির্বাচিত হয়েছেন।

ঢাকা-১০ এর উপনির্বাচনে ১৫ হাজার ৯৫৫ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন আওয়ামী লীগের প্রার্থী মো. শফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন। অপর প্রার্থীদের মধ্যে জাতীয় পার্টির হাজি মো. শাহজাহান পেয়েছেন ৯৭ ভোট, প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক দল-পিডিপির কাজী মুহাম্মদ আবদুর রহিম পেয়েছেন ৬৩ ভোট, বাংলাদেশ মুসলিম লীগের নবাব খাজা আলী হাসান আসকারী পেয়েছেন ১৫ ভোট এবং বাংলাদেশ কংগ্রেসের মো. মিজানুর রহমান পেয়েছেন ১৮ ভোট।

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র নির্বাচিত হওয়া ব্যারিস্টার ফজলে নূর তাপসের ছেড়ে দেয়া এই আসনে তিন লাখ ২১ হাজার ২৭৫ জন ভোটারের মধ্যে ভোট দিয়েছেন ১৬ হাজার ৯৬৫ জন। ভোটের হার দাঁড়িয়েছে ৫ দশমিক ২৮ শতাংশ।

বাগেরহাট-৪ (শরণখোলা-মোরেলগঞ্জ) আসনের উপনির্বাচনে বিপুল ভোটের ব্যবধানে নৌকার প্রার্থী ও আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির নির্বাহী সদস্য অ্যাডভোকেট আমিরুল আলম মিলন বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। শনিবার অনুষ্ঠিত শরণখোলায় চারটি এবং মোরেলগঞ্জের ১৬টিসহ দুই উপজেলার ২০টি ইউনিয়নের ১৪৩টি ভোটকেন্দ্রের সবকটিতেই নৌকার প্রার্থীর বিপুল ভোটে বিজয় হয়েছেন।

আসনের দুটি উপজেলায় মোট ভোটার সংখ্যা তিন লাখ ১৬ হাজার ৫১০ জন। এর মধ্যে অ্যাডভোকেট আমিরুল আলম মিলন এক লাখ ৮২ হাজার ৭৪৫ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে বিজয়ী হয়েছেন। তার নিকটতম ও একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী জাতীয় পার্টির প্রার্থী সাজন কুমার মিস্ত্রি পেয়েছেন মাত্র ৩ হাজার ৭৪৪ ভোট।

উলেস্নখ্য, বাগেরহাট-৪ (শরণখোলা-মোরেলগঞ্জ) আসনের আওয়ামী লীগ দলীয় সংসদ সদস্য ডা. মোজাম্মেল হোসেনের মৃতু্যতে আসনটি শূন্য হওয়ার পর গত ৬ ফেব্রম্নয়ারি উপনির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন।

গাইবান্ধা-৩ (সাদুল্লাপুর-পলাশবাড়ী) আসনে অনুষ্ঠিত উপ-নির্বাচনে আ’লীগ প্রার্থী কৃষক লীগের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট উম্মে কুলসুম স্মৃতিকে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত ঘোষণা করা হয়েছে। ১৩২টি কেন্দ্রের ফলাফলে অ্যাডভোকেট উম্মে কুলসুম স্মৃতি (নৌকা) পেয়েছেন ২ লাখ ১৪ হাজার ৪৮২ ভোট, তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি বিএনপি দলীয় প্রার্থী গাইবান্ধা জেলা বিএনপি সভাপতি অধ্যাপক ডাঃ সৈয়দ মইনুল হাসান সাদিক পেয়েছেন ৪১ হাজার ৪০৮ ভোট। গাইবান্ধা জেলা নির্বাচন ও রিটার্নিং অফিসার মোঃ মাহাবুবুর রহমানের কাছ থেকে প্রাপ্ত ফলাফলের ভিত্তিতে এই তথ্য জানা যায়। তিনি আরও জানান, একটি পৌরসভা ও ১৯টি ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত এই সংসদীয় আসনে মোট ভোটার ৪ লাখ ৩৫ হাজার ২১১ জন।

নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন আওয়ামী লীগ দলীয় প্রার্থী কৃষক লীগের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট উম্মে কুলসুম স্মৃতি, বিএনপির দলীয় প্রার্থী গাইবান্ধা জেলা বিএনপি সভাপতি অধ্যাপক ডাঃ সৈয়দ মইনুল হাসান সাদিক ও জাতীয় পার্টির প্রার্থী মইনুল রাব্বী চৌধুরী। এদিকে বুধবার জাসদের প্রার্থী খাদেমুল ইসলাম খুদি নৌকার সমর্থনে তার প্রার্থীতা প্রত্যাহারের ঘোষণা দেয়।

 
সাবেক হুইপ শহীদুল হক জামাল আর নেই
                                  

জাতীয় সংসদের সাবেক হুইপ সৈয়দ শহীদুল হক জামাল আর নেই। মঙ্গলবার বাংলাদেশ সময় দিবাগত রাত ৩টায় সিঙ্গাপুরের মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন তিনি মারা যান (ইন্নালিল্লাহি ... রাজিউন)। তার বয়স হয়েছিল ৭৬ বছর। তিনি স্ত্রী, ৩ ছেলে ও ১ মেয়ে রেখে গেছেন। শহীদুল হক জামালের সাবেক এপিএস ফকির নাসির উদ্দিন বুধবার দুপুরে যুগান্তরকে জানান, অসুস্থতার কারণে গত ৪ মার্চ দুপুরে উন্নত চিকিৎসার জন্য এয়ার অ্যাম্বুলেন্স করে সিঙ্গাপুর নেয়া হয় বিএনপির সাবেক এ এমপিকে। সেখানে তার গলব্লাডারে অস্ত্রোপচার করা হয়। এর আগে তিনি ঢাকার অ্যাপোলো হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। বুধবার বিকালে লাশ ঢাকায় আসার কথা। লাশ ঢাকায় আসার পর দাফনের বিষয়ে সিদ্ধান্ত হবে।

বিএনপির প্রতিষ্ঠালগ্ন শহীদুল হক জামাল দলটির সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। ১৯৯১ ও ২০০১ সালের জাতীয় নির্বাচনে তিনি ধানের শীষের প্রার্থী হিসেবে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন। ২০০১ সালে নির্বাচিত হওয়ার পর তাকে জাতীয় সংসদের হুইপ করা হয়। শহীদুল হক জামাল ওয়ান ইলেভেনের পটপরিবর্তনের পর বিএনপিতে সংস্কারপন্থী হিসেবে চিহ্নিত হন। তাকে বহিষ্কারও করা হয়। পরে বহিষ্কারাদেশ প্রত্যাহার করা হয়। পরে তিনি বরিশাল-২ ও পিরোজপুর-১ আসনে নির্বাচন করার জন্য দলীয় মনোনয়ন ফরম তোলেন। তবে ওই নির্বাচনে দল তাকে মনোনয়ন দেয়নি।

 
বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা আমরা কায়েম করবই: কাদের
                                  

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে চলেছে। আরও এগিয়ে যাবে। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকীতে এসে আমরা নতুন করে নতুন উদ্যমে কাজ শুরু করেছি। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা আমরা কায়েম করবই।

বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে আজ মঙ্গলবার সকালে ধানমন্ডি ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধু ভবনের সামনে স্থাপিত বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদনের পর সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন। ওবায়দুল কাদের বলেন, দুর্নীতি, জঙ্গিবাদ, মাদক, সন্ত্রাস ও সাম্প্রদায়িকতার বিষবৃক্ষ উপড়ে ফেলে মুজিববর্ষে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশকে এগিয়ে নিতে হবে। আমরা আজ নতুন করে শপথ নিচ্ছি- উন্নয়নের ধারাবাহিকতা রক্ষা করার।

দেশে উন্নয়নের ধারাবাহিকতা রক্ষা করার জন্য দেশবাসীর সহযোগিতা কামনা করেন তিনি।
এর আগে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। শ্রদ্ধা নিবেদন করার পর তিনি কিছু সময় নীরবে দাঁড়িয়ে থাকেন। প্রথমবার তিনি প্রধানমন্ত্রী হিসেবে, পরে তিনি আওয়ামী লীগ সভাপতি হিসেবে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শ্রদ্ধা নিবেদন করে চলে যাওয়ার পর সর্বসাধারণের জন্য স্থানটি উন্মুক্ত করে দেয়া হয়।

 
করোনা নিয়ে ইস্যু খুঁজতে শুরু করেছে বিএনপি: কাদের
                                  

করোনা ভাইরাস নিয়ে বিএনপি নেতারা মানবিক বিষয়টি না দেখে বরং এর মধ্যে ইস্যু খুঁজতে শুরু করেছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। মঙ্গলবার (১০ মার্চ) রাজধানীর ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগের রাজনৈতিক কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এ মন্তব্য করেন তিনি। ওবায়দুল কাদের বলেন, জনগণের স্বাস্থ্যের কথা চিন্তা করে মুজিববর্ষের প্রোগ্রাম পুনর্বিন্যাস করা হয়েছে। এর মধ্যে রাজনীতির অনুপ্রবেশ ঘটাতে চাইছেন কেউ কেউ। মির্জা ফখরুলরা মানবিক বিষয় দেখছেন না, তারা করোনা ভাইরাসের মধ্যে ইস্যু খুঁজতে শুরু করেছেন।

তিনি বলেন, করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সরকার সব ধরনের প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে। এটা নিয়ে আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই, সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে। অসাধু ব্যবসায়ীরা মাস্কসহ প্রয়োজনীয় পণ্য মজুদ করে মুনাফা লাভের চেষ্টা করছেন উল্লেখ করে কাদের বলেন, মুনাফালোভীদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে। আগামী ১২ মার্চ প্রধানমন্ত্রী ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে দেশের প্রথম এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে উদ্বোধন করবেন বলেও জানান তিনি।

 
আ. লীগের কার্যনির্বাহী সংসদের সভা সোমবার
                                  

দলের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের জরুরি সভা ডেকেছে আওয়ামী লীগ। আগামী সোমবার (৯ মার্চ) সন্ধ্যা ৭টার দিকে গণভবনে এই সভা অনুষ্ঠিত হবে। আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সভায় সভাপতিত্ব করবেন। আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া আজ শনিবার (৭ মার্চ) প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে সংবাদমাধ্যমকে এ তথ্য জানিয়েছেন। দলের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের সভায় আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সব সদস্যকে যথাসময়ে উপস্থিত থাকার অনুরোধ জানিয়েছেন।

 
খালেদা জিয়াকে কারাগারে রেখে মুজিব শতবর্ষ পালন সফল হবে না: ফখরুল
                                  

স্টাফ রিপোর্টার:

মুজিব শতবর্ষ পালনকে প্রহসন উল্লেখ করে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, বেগম খালেদা জিয়াকে কারাগারে রেখে মুজিব শতবর্ষ পালন সফল হবে না। শনিবার (০৭ মার্চ) সকালে দলের প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের সমাধিতে শ্রদ্ধা জানানো শেষে সাংবাদিকদের একথা বলেন তিনি। এ সময় ভারতের প্রাধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশে আসা নিয়েও প্রশ্ন তোলেন মির্জা ফখরুল।

তিনি বলেন, এটা একটা মকারি, প্রহসন। বেগম জিয়া যিনি ৯ বছর গণতন্ত্রের জন্য লড়াই করেছেন, এখনও কারাগারে রয়েছেন। তাকে রেখে কোনো বর্ষই সফল হবে না। এ সময় মোদির বাংলাদেশ সফর নিয়ে এক প্রশ্নের জবাবে ফখরুল বলেন, বর্তমানে বাংলাদেশের যে অবস্থা, বিশেষ করে এনআরসি, সিএএর পরে এবং সম্প্রতি যে দাঙ্গা হয়ে গেল তার যে তার যে প্রভাব পড়েছে তার পর ওনার এখানে আসাটা কতটা সমীচীন, শোভনীয় সেটা তারাই বিচার করবেন।

 
৭ মার্চের ভাষণ অস্বীকারকারীরা স্বাধীনতাকেই অস্বীকার করেন
                                  

স্টাফ রিপোর্টার:
ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণকে যারা অস্বীকার করেন প্রকারান্তরে তারা স্বাধীনতাকেই অস্বীকার করেন বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। শনিবার সকালে ধানমণ্ডি ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘরের সামনে স্থাপিত বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানানোর পর সাংবাদিকদের সামনে এ মন্তব্য করেন তিনি।ওবায়দুল কাদের বলেন, স্বাধিকার থেকে স্বাধীনতার আন্দোলনে উত্তরণের দিবসই ছিল ৭ মার্চ। এ দিনেই সত্যিকার অর্থে স্বাধীনতার ঘোষণা হয়।

যেই ভাষণকে নিষিদ্ধ করে রাখা হয়েছিল সেটা বিশ্ব স্বীকৃত সর্বকালের সেরা ভাষণ। তিনি আরও বলেন, এ ভাষণকে যারা অস্বীকার করে তারা প্রকারান্তরে স্বাধীনতাকেই অস্বীকার করে। আজকের দিনটিকে আমরা বিশেষ দিবস হিসেবে পালন করি এবং সেটাই আমরা মনে করি। যারা মনে না তাদের স্বাধীনতার কোনো চেতনা নেই।

 
ভারতকে খুশি করতে দাসের মতো আচরণ করে বিএনপি: সেতুমন্ত্রী
                                  

অনলাইন ডেস্ক:

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘আমরা ভারতের সঙ্গে বন্ধুত্বের সম্পর্ক রক্ষা করতে গিয়ে স্বার্থের কথা ভুলে যাই না। ভারত আমাদের মুক্তিযুদ্ধের অকৃত্রিম বন্ধু। দেশটির প্রতিনিধি হয়েই মুজিববর্ষের অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।’

আজ বুধবার আওয়ামী লীগ সভাপতির ধানমন্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলের দুই জেলা নেতাদের হাতে সদস্য ফরম ও গঠনতন্ত্র তুলে দেওয়ার সময় তিনি এসব কথা বলেন।ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘মুজিববর্ষে মোদির আগমনে যারা বিরোধিতা করছেন, তারা প্রকারান্তরে মুজিববর্ষেরই বিরোধিতা করছেন।’ ওবায়দুল কাদের আরও বলেন, ‘এখন যারা মোদির বাংলাদেশে আসার বিরোধিতা করছেন, তারাই ভারতের সঙ্গে দাসের মতো আচরণ করেন। বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া প্রধানমন্ত্রী থাকাকালে ভারতে গিয়ে পানির ন্যায্য হিস্যা আলোচনা করতে ভুলে গিয়েছিলেন। সেই দলটির নেতারা ভারতের নেতাদের খুশি করতে দাসের মতো আচরণ করেন। এখন তারা কোন লজ্জায় মোদির বিরোধিতা করছেন?’

জঙ্গীবাদ, সাম্প্রদায়িকতা এবং স্বাধীনতা বিরোধীদের দলের সদস্য না করতে তৃণমূল নেতাদের নির্দেশ দিয়েছেন ওবায়দুল কাদের। পাশাপাশি দাগি, সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজ, ভূমিদস্যু, মাদক ব্যবসায়ী এবং মাদকাসক্তরাও আওয়ামী লীগের সদস্য হতে পারবে না মর্মে তৃণমূল নেতাদের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

এ সময় আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক, দফতর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার আব্দুস সবুর, ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, উপ-দফতর সম্পাদক সায়েম খান, কার্যনির্বাহী সদস্য আরিফুর রহমানসহ অনেকেই উপস্থিত ছিলেন।

 
নির্বাচনে অনিয়মের অভিযোগ ও ফলাফল বাতিল চেয়ে ইশরাকের আবেদন
                                  

স্টাফ রিপোর্টার:
ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে অনিয়মের অভিযোগ ও ফলাফল বাতিল চেয়ে নির্বাচনী ট্রাইব্যুনালে আবেদন করেছেন বিএনপির মেয়র প্রার্থী ইশরাক হোসেন। মঙ্গলবার (৩ ফেব্রুয়ারি) সকালে নির্বাচনী ট্রাইব্যুনাল ঢাকার প্রথম যুগ্ম জেলা জজ উৎপল ভট্টাচার্যের আদালতে এই অভিযোগ দায়ের করেন তিনি।

নির্বাচন সুষ্ঠু হয়নি এমন অভিযোগে সিইসি, নির্বাচন কমিশন সচিব, রিটার্নিং কর্মকর্তা, আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী শেখ ফজলে নূর তাপসসহ ৮ জনকে বিবাদী করা হয়। আবেদনে ঢাকা দক্ষিণ সিটি নির্বাচনের ফলাফল বাতিল ঘোষণা করে পুনরায় ভোটগ্রহণের আবেদন জানানো হয়। গতকাল ঢাকা উত্তর সিটি নির্বাচনে বিএনপির মেয়র প্রার্থী তাবিথ আউয়ালও একই অভিযোগে আবেদন করেন। ১ ফেব্রুয়ারি ঢাকার দুই সিটি করপোরেশন নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। দুই সিটিতেই আওয়ামী লীগ প্রার্থী জয়ী হয়।

 
সরকার জনগণের সব অধিকার কেড়ে নিয়েছে : ফখরুল
                                  

স্টাফ রিপোর্টার:
খালেদা জিয়াকে ষড়যন্ত্রমূলকভাবে জামিন দেয়া হচ্ছে না বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেন, তিনি এত অসুস্থ যে, তার অসুস্থতার পরেও তাকে জামিন দেয়া হচ্ছে না। এটা অত্যন্ত ষড়যন্ত্রমূলকভাবে দেয়া হচ্ছে না। আমরা চেষ্টা করছি জনগণকে সংগঠিত করে দেশনেত্রীকে মুক্ত করার। আজ শনিবার নয়াপল্টন বিএনপপর কার্যালয়ের সামনে পুলিশি অবস্থান দেখে সাংবাদিকদের কাছে তিনি এই প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন।

তিনি বলেন, সরকার তারা জনগণের সব অধিকার কেড়ে নিয়েছে। তারই ধারাবাহিকতায় তারা সমাবেশ করতে দিচ্ছে না। এর ধারাবাহিতকতায় র‌্যালি করতে অনুমতি দেয় না। এটা এখন একটি গতানুগতিক ব্যাপার হয়ে দাঁড়িয়েছে। জনগণকে দমিয়ে রেখে, মানুষের আকাঙ্খাকে দমিয়ে রেখে এরা রাষ্ট্র পরিচালনা করতে চায়। গত বৃহস্পতিবার হাইকোর্টে খালেদা জিয়ার জামিন আবেদন খারিজ করে দেয়। এই আদেশের প্রতিবাদে নয়া পল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে শনিবার দুপুর ২টায় বিক্ষোভ সমাবেশের কর্মসূচি ঘোষণা করলেও পুলিশের কাছ থেকে তার অনুমতি মেলেনি।

সকাল সাড়ে ১১টায় বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর নয়া পল্টনের কার্যালয়ে আসেন। সে সময় পুলিশ কার্যালয়ের সামনে দাঁড়িয়েছিল। বিএনপি মহাসচিব পুলিশকে গেট থেকে একটু দূরত্বে থাকার জন্য অনুরোধ জানান।

 
সমাবেশের অনুমতি পায়নি বিএনপি সারাদেশে বিক্ষোভ কর্মসূচি
                                  

স্টাফ রিপোর্টার:
নয়াপল্টনে বিক্ষোভ সমাবেশের অনুমতি না পাওয়ায় আগামীকাল রোববার রাজধানীর সব থানায় বিক্ষোভ কর্মসূচির ঘোষণা দিয়েছে বিএনপি। বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী জানিয়েছেন, বিএনপির বিক্ষোভ সমাবেশ পালনের কথা ছিল, কিন্তু পুলিশ বাধা দিচ্ছে, তারা সমাবেশ করতে দিচ্ছে না। দলীয় চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার জামিন আবেদন খারিজের প্রতিবাদে শনিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) দুপুর ২টায় নয়াপল্টনে দলীয় কার্যালয়ের সামনে বিক্ষোভ সমাবেশ করার কথা ছিল দলটির। সকাল থেকেই বিক্ষোভ সমাবেশকে কেন্দ্র করে নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয় ঘিরে রেখেছিল পুলিশ।

সমাবেশ করতে না পারায় আগামীকাল রাজধানীর সব থানা এলাকায় বিক্ষোভ কর্মসূচির ঘোষণা দিয়েছে বিএনপি। গত বৃহস্পতিবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বিক্ষোভ সমাবেশের ঘোষণা দেন। এর আগে বৃহস্পতিবার দুপুরে জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় চতুর্থবারের মতো বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার জামিন আবেদন খারিজ করে দেন আদালত।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়েই তার চিকিৎসা সম্ভব বলে আদেশে বলেন হাইকোর্ট। দুর্নীতির মামলায় দণ্ডিত হয়ে দুই বছরের বেশি সময় কারাবন্দি রয়েছেন বেগম জিয়া। এরমধ্যে প্রায় ১০ মাস ধরে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন তিনি।

 

   Page 1 of 69
     রাজনীতি
করোনা মোকাবিলায় আজ সুনির্দিষ্ট প্রস্তাবনা দেবে বিএনপি
.............................................................................................
স্বাস্থ্যকর্মীদের নিরাপত্তা পোশাক নিশ্চিতের দাবি অলির
.............................................................................................
করোনা মোকাবেলায় জাতীয় কমিটি চান মির্জা ফখরুল
.............................................................................................
নো টেস্ট, নো করোনা- পলিসিতে সরকার‌
.............................................................................................
আনুষ্ঠানিকতা শেষে খালেদা জিয়ার মুক্তি: কাদের
.............................................................................................
তিন আসনেই জয়ী আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থীরা
.............................................................................................
সাবেক হুইপ শহীদুল হক জামাল আর নেই
.............................................................................................
বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা আমরা কায়েম করবই: কাদের
.............................................................................................
করোনা নিয়ে ইস্যু খুঁজতে শুরু করেছে বিএনপি: কাদের
.............................................................................................
আ. লীগের কার্যনির্বাহী সংসদের সভা সোমবার
.............................................................................................
খালেদা জিয়াকে কারাগারে রেখে মুজিব শতবর্ষ পালন সফল হবে না: ফখরুল
.............................................................................................
৭ মার্চের ভাষণ অস্বীকারকারীরা স্বাধীনতাকেই অস্বীকার করেন
.............................................................................................
ভারতকে খুশি করতে দাসের মতো আচরণ করে বিএনপি: সেতুমন্ত্রী
.............................................................................................
নির্বাচনে অনিয়মের অভিযোগ ও ফলাফল বাতিল চেয়ে ইশরাকের আবেদন
.............................................................................................
সরকার জনগণের সব অধিকার কেড়ে নিয়েছে : ফখরুল
.............................................................................................
সমাবেশের অনুমতি পায়নি বিএনপি সারাদেশে বিক্ষোভ কর্মসূচি
.............................................................................................
রাজনৈতিক দিকনির্দেশনায় আমরা চলি: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী
.............................................................................................
চিকিৎসার জন্য লন্ডনে যেতে রাজি খালেদা জিয়া
.............................................................................................
বাংলাদেশ কে হারাতে হবে শুল্কমুক্ত সুবিধা
.............................................................................................
শেখ হাসিনাকে ক্ষমতা থেকে সরানোর উদ্দেশ্যেই পিলখানা হত্যাকাণ্ড
.............................................................................................
বিএনপি ক্ষমতায় গেলে পিলখানা হত্যাকাণ্ডের সঠিক বিচার হবে: ফখরুল
.............................................................................................
সংবিধান অনুযায়ী জামিন পাবে খালেদা জিয়ার: ফখরুল
.............................................................................................
বিএনপির বিক্ষোভ মিছিলে পুলিশের হামলা ও লাঠিচার্জ
.............................................................................................
খালেদার মুক্তিতে দোটানায় “পরিবার ও বিএনপি”
.............................................................................................
খালেদা জিয়াকে মুক্তি আওয়ামী লীগের হাতে নেই: ওবায়দুল কাদের
.............................................................................................
খালেদার মুক্তির সিদ্ধান্ত তার পরিবার নেবে-ফখরুল
.............................................................................................
দেনদরবার করে সরকার টলানো যায় না: রব
.............................................................................................
ঢাকা-১০ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী শফিউল
.............................................................................................
ফখরুলকে নোংরা রাজনীতি না করার আহ্বান হানিফের
.............................................................................................
খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য কাদেরকে-ফখরুলের ফোন
.............................................................................................
আমরা কথা দিয়েছিলাম দু’টি স্বপ্নের কথা, তা আর স্বপ্ন নয়
.............................................................................................
খালেদা জিয়ার মুক্তি সম্পূর্ণ সরকারের ইচ্ছার ওপর নির্ভর
.............................................................................................
বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় হাসপাতালে
.............................................................................................
খালেদা জিয়ার জীবনহানির আশঙ্কায় রিজভী
.............................................................................................
বিদেশি কূটনীতিকদের সঙ্গে বিএনপির ২ মেয়র প্রার্থীর বৈঠক
.............................................................................................
সমাবেশ করে খালেদা জিয়ার মুক্তি মিলবে না, তার জন্য আছে আইন আদালত: তথ্যমন্ত্রী
.............................................................................................
খালেদা জিয়ার কারাবাসের দুই বছর: বিএনপির সমাবেশ আজ
.............................................................................................
২০১৪ সালের পরে যারা দলে যোগ দিয়েছে তাদের পদে রাখা যাবেনা: তথ্যমন্ত্রী
.............................................................................................
কারচুপি বা ভোট জালিয়াতি হলে ভোট আরো বেশি কাস্ট হতো: সেতুমন্ত্রী
.............................................................................................
পুনঃ সিটি নির্বাচনের দাবি ফখরুলের
.............................................................................................
ভোটাররা কেন্দ্রে ঢুকতে পারেনি: তাবিথ
.............................................................................................
বিএনপি জনবিচ্ছিন্ন একটি দল
.............................................................................................
রাজনীতিতে জনগণের অনীহা গণতন্ত্রের জন্য শুভ নয়: সেতুমন্ত্রী
.............................................................................................
আগামীকাল তাবিথ-ইশরাকের নির্বাচনপরবর্তী সংবাদ সম্মেলন
.............................................................................................
বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা জানালেন আতিকুল ইসলাম
.............................................................................................
কম ভোটার উপস্থিতির কারণ জানালেন তথ্যমন্ত্রী
.............................................................................................
আগামীতে নির্বাচনে পোলিং এজেন্ট না রাখার পক্ষে নানক
.............................................................................................
নির্বাচন প্রত্যাখ্যান, হরতালের ডাক দিয়েছে বিএনপি
.............................................................................................
উৎসবমূখর পরিবেশে ভোট গ্রহণ চলছে : নানক
.............................................................................................
ভোটের পরিবেশ সুষ্ঠু ও সুন্দর দেখাচ্ছে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক : মো: তাজুল ইসলাম
প্রধান কার্যালয়: ২১৯ ফকিরের ফুল (১ম লেন, ৩য় তলা), মতিঝিল, ঢাকা- ১০০০ থেকে প্রকাশিত । ফোন: ০২-৭১৯৩৮৭৮ মোবাইল: ০১৮৩৪৮৯৮৫০৪, ০১৭২০০৯০৫১৪
Web: www.dailyasiabani.com ই-মেইল: dailyasiabani2012@gmail.com
   All Right Reserved By www.dailyasiabani.com Developed By: Dynamic Solution IT & Dynamic Scale BD